Today: 01 May 2017 - 12:43:20 am

দিনাজপুরে টার্কি বার্ড পালন করে ব্যাপক সাফল্য

Published on Thursday, March 16, 2017 at 9:28 am

 শাহ্ আলম শাহী, স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর থেকে: টার্কি বার্ড পালন করে ব্যাপক সাফল্য বয়ে এনেছে দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার আনজুমান আরা বেগম।

এ বিদেশী টার্কি বার্ড পালন করে ঘুরেছে তার ভাগ্যের চাকা। বিদেশি হলেও দেশের আবহাওয়া খাপ খাওয়ায় ও মৃত্যু ঝুঁকি কম থাকায় দেশের একমাত্র ব্রিডিং ফার্ম হিসাবে পরিচিতি পেয়েছে তার ফার্মটি।

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জের মালি পাড়ায় তার এই ইকো এগ্রো ফার্ম। বানিজ্যিক ভিক্তিতে উৎপাদন শুরু করেছে ফার্মটি। দেশের অন্য স্থানে টার্কি বার্ড ফার্ম থাকলেও ব্রিডিং ফার্ম দেশে এটি প্রথম। সম্পূন্ন প্রাকৃতিক উপায়ে বাচ্চা উৎপাদন হচ্ছে এই ফার্মেই।

দিনাজপুরের নবাবগজ্ঞ উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে গড়ে উঠেছে দেশের একমাত্র টার্কি বার্ডস ফার্ম। এক বছর আগে নবাবগজ্ঞের মালি পাড়ায় ১’শ বার্ড নিয়ে শুরু করা ফার্মে বর্তমানে এক হাজার ২’শ টার্কি বার্ডস রয়েছে। দেশে টার্কি বার্ডসের মাংস খুব একটা পরিচিত না হলেও আন্তর্জাতিক বাজারে সুপরিচিতএবং এর মাংস জনপ্রিয় খাবার। তবে দেশের চাইনিজ রেস্টুরেন্ট গুলোতে মাংসের চাহিদা রয়েছে ব্যাপক। টার্কি বার্ড পালনে খরচ কম। মাত্র ৪ মাসে একটি টার্কি বার্ডসের ওজন হয় ৬ থেকে ৭কেজি হয়। তবে সর্বোচ্চ ১৫ থেকে ১৮ কেজি পর্যন্ত মাংস হয়ে থাকে।

টার্কি বার্ডসের ৭০ ভাগ খাবার শাক-সব্জি ও পুকুরের (কচুরীপানা) শেওলা থেকে। বাকি ৩০ ভাগ খাদ্য গম-ভুট্রাসহ অন্যান্য খাবার থেকে যোগান দেয়া হয়। দেশের আবহাওয়ার সাথে সহজেই মানিয়ে নিতে পারে টার্কি বার্ড। সম্ভাবনাময় এই শিল্পে বিনিয়োগ করা হলে দেশের চাহিদা পূরন করে বিদেশে মাংস ও বাচ্চা রপ্তানী করা সম্ভব বলে প্রানি সম্পদ বিভাগের কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন জানিয়েছেন। সরকারী সহযোগিতা ও পৃষ্ঠপোষকতা পেলে দেশ ছাড়িয়ে এই শিল্পটি আন্তর্জাতিক বাজার পাওয়া সম্ভব বলে মনে করেন ইকো এগ্রো ফার্মের স্বত্ত্বাধিকারী আনজুমান আরা বেগম।

তিনি বলেন, প্রতিটি গ্রাম-গঞ্জে এটি ইন্ড্রাট্রিজ হিসাবে গড়ে তোলা সম্ভব। নবাবগজ্ঞ উপজেলার প্রানী সম্পদ কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, টার্কি বার্ডের মাংসে পুষ্টি গুন রয়েছে এবং এর মাংস সুস্বাদু। উপজেলা নির্বাহী অফিসার বজলুর রশিদ বলেন, টার্কি বার্ড পালনে তার পক্ষ থেকে যথাসম্ভব সরকারী সহযোগিতা থাকবে বলে তিনি জানান। এই ফার্মে বর্তমানে ২ জন মহিলা সহ ১০ জন শ্রমিক কাজ করছেন। তারা টার্কি বার্ডসের খাদ্য বাধাকপি সহ বিভিন্ন ধরনের সব্জি কাটা ও পরিবেশন করা সহ দেখাশুনা করেন। ইকো এগ্রো ফার্মের স্বত্ত্বাধিকারী আনজুমান আরা বেগম নবাবগজ্ঞে প্রাথমিক ও এইচ.এস.সি পাশ করে বগুড়ার আযিযুল হক কলেজ থেকে অর্নাস পাশ করেন। চাকুরী না করে নিজের চেষ্ঠায় দিনাজপুরের নবাবগঞ্জের মালিপাড়ায় ৭ বিঘা জমির উপর এই ফার্ম গড়ে তুলেছেন। দেশের একমাত্র ব্রিডিং ফার্ম হিসেবে ধর্যের সাথে ফার্মটি পরিচালনা করে আসছেন। তিনি সরকারিভাবে ট্রেনিং ও রক্ষনা-বেক্ষনের জন্য সরকারী সহায়তার দাবি জানান। তিনি ইন্টারনেট থেকেই প্রথম এই টার্কি বার্ড সম্পর্কে জানতে পারেন।

মতামত