Today: 30 Apr 2017 - 07:22:09 am

কুড়িগ্রামে প্রধানমন্ত্রীর ১০টি ব্রান্ডিং বিষয়ক মতবিনিময় সভা

Published on Sunday, April 16, 2017 at 10:05 pm

সাইফুর রহমান শামীম, কুড়িগ্রাম: ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ১০টি ব্রান্ডিং বিষয়ক বিশেষ উদ্যোগ নিয়ে কুড়িগ্রামে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রোববার সকালে জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় জেলা তথ্য অফিস এই মতবিনিময় সভার আয়োজন করে।

জেলা প্রশাসক খান মোঃ নুরুল আমিন এর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) রফিকুল ইসলাম সেলিম, চিলমারী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শওকত আলী বীরবিক্রম, সিভিল সার্জন ডাঃ এসএম আমিনুল ইসলাম, সদর হাসপাতাল তত্তাবধায়ক ডাঃ এটিএম আনোয়ারুল হক প্রামাণিক, পৌর মেয়র আব্দুল জলিল, জেলা তথ্য কর্মকর্তা শাহজাহান আলী প্রমুখ।

মতবিনিময় সভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ১০টি ব্রান্ডিং বিষয়ক বিশেষ উদ্যোগের উপকারভোগিদের চিত্র তুলে ধরা হয়। ব্রান্ডিং বিষয় গুলো হলো- একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্প, ডিজিটাল বাংলাদেশ,শিক্ষা সহায়তা কার্যক্রম, নারীর ক্ষমতায়ন কার্যক্রম, সবার জন্য বিদ্যুৎ, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি, কমিউনিটি ক্লিনিক, আশ্রয়ন প্রকল্প, বিনিয়োগ বিকাশ এবং পরিবেশ সুরক্ষা কার্যক্রম।

এসময় বক্তারা জানান, একটি বাড়ি একটি খামার ও পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক প্রকল্পের আওতায় জেলায় ৬৪৬টি সমিতির ৩৬হাজার ২৬৫টি পরিবারে তহবিল রয়েছে ৪৭কোটি ৮৭লাখ টাকা। আশ্রয়ণ প্রকল্পে মধ্যে ২৩টি আশ্রয়ণ প্রকল্প এবং ১৩টি আবাসন প্রকল্পে ৩হাজার২৯০টি পরিবার পূর্ণবাসিত হয়েছে। ডিজিটাল সেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ৭৩টি ইউনিয়ন ও ৩টি পৌরসভা ডিজিটাল সেন্টার স্থাপন করে ৮০ ধরনের সেবা প্রদান কারা হচ্ছে। শিক্ষা সহায়তা কর্মসূচির আওতায় জেলায় শিক্ষার হার ৫৬শতাংশে উন্নতি করে ৬৬৪টি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ৫টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও ৭টি কলেজকে জাতীয়করণ করা হয়। নারীর ক্ষমতায়ন কর্মসূচি আওতায় সুবিধা বঞ্চিত নারীদের শিক্ষা, পুষ্টি, স্বাস্থ্য, মা ও শিশু পরিচর্যা ও সুদ মুক্ত ঋণ প্রদানের মাধ্যমে জেলায় প্রায় এক লাখ মহিলা সক্ষমতা অর্জন করেছে।

বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের মাধ্যমে সদর উপজেলায় ৯৭% এলাকা এবং সাতটি উপজেলায় ৪৯.৭৮% এলাকা বিদ্যুৎ সুবিধার আওতায় এসেছে। ২৬৬টি কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে বিনামূল্যে ৩০ প্রকার ঔষধ দেয়া হচ্ছে। সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচিতে জেলায় বয়স্ক ভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্ত নারী ভাতা, এতিম ও প্রতিবন্ধিদেরকে প্রতিমাসে ৪শ টাকা করে ৪৯হাজার ৯১১জন মানুষকে দেয়া হচ্ছে। বিনিয়োগ বিকাশে ২০১৫ সালের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কুড়িগ্রাম সফর কালে একটি অর্থনৈতিক অঞ্চল তৈরির ঘোষণা দেন। এতে করে এই অঞ্চলে দেশি-বিদেশী বিনিয়োগ বাড়ার পাশাপাশি ব্যাপক কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। পরিবেশ নিরাপত্তায় জেলায় ৬৫কি.মি. সংযোগ সড়কে স্ট্রীপ বাগান করা হয়। বিক্রয় বিতরণের জন্য ৭০হাজার পি চারা উত্তোলন করা হয়েছে। চলতি অর্থ বছরে ৪টি আশ্রয়ন প্রকল্পে ৪হাজার ৯৫০টি বিভিন্ন প্রজাতির চারা রোপন করা হয়েছে।

মতামত