Templates by BIGtheme NET
আজ- শনিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০২০ :: ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ :: সময়- ৯ : ০৫ পুর্বাহ্ন
Home / নীলফামারী / জলঢাকায় স্কুলের প্রধান শিক্ষককে পেটালো বিএনপি নেতা

জলঢাকায় স্কুলের প্রধান শিক্ষককে পেটালো বিএনপি নেতা

ইনজামাম-উল-হক নির্ণয়, নীলফামারী ৫ সেপ্টেম্বর॥ নীলফামারীর জলঢাকায় এক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে পেটালেন বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি। উপজেলার গোলনা ইউনিয়নের চিড়াভিজা গোলনা দ্বি-মূখী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আল হাসান জায়েদ নওরোজী সোহেলকে বিদ্যালয়ের অফিস কে দরজা আটকিয়ে মারপিট করেন। ওই বিদ্যালয়ের পরিচালনা কমিটির সভাপতি খুরশিদ আলম আলো উক্ত ইউনিয়নের বিএনপি সভাপতির দায়িত্ব পালন করছে । তার বড় ভাই কামরুল আলম কবীর উপজেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য এবং উক্ত ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান। তার বিরুদ্ধে এবার বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ্য পরিবারের দেয়া সরকারী ত্রানের ৫০০ কেজী চাল কালোবাজারে ১৯ হাজার টাকায় বিক্রির অভিযোগ রয়েছে। এ ছাড়া তার আরেকটি ছোট ভাই আমিনুল ইসলাম ইউনিয়ন জামায়াতের নেতা বলে এলাকাবাসী জানায়।
আজ মঙ্গলবার (৪ সেম্টেম্বর) প্রধান শিক্ষক বলেন, গত ৩ সেপ্টেম্বর ঈদের জন্য স্কুল বন্ধ ছিল। আমি বন্ধের দিনও অফিসে বসে অফিসের কাজ করছি। বিকাল ৩টার দিকে হঠাৎ আমার মোবাইল ফোনে সভাপতি ওনার মোবাইল থেকে ফোন দিয়ে আমাকে বলেন, আপনি কোথায়? উত্তরে আমি সভাপতিকে বললাম, আমি স্কুলে অফিসেই আছি । তার ১০মিনিট পরেই সভাপতি আমার অফিসে আসেন এবং দরজা বন্ধ করে দেন। আমি দরজা বন্ধের বিষয় জানতে চাইলে, কোনো উত্তর না দিয়ে আমাকে এলোপাথারি চরথাপ্পর মারতে থাকে। এতে আমি আহত হয়ে যাই। পরে এলাকার মানুষ আমাক ওখান থেকে উদ্ধার করে পাশ্ববর্তী ডোমার উপজেলার বোড়াগাড়ি হাসপাতালে ভর্তি করায়। তবে বিষয়টি আমি এখনও জানতে পারলাম না তিনি আমাকে কেন মারলেন? এ ব্যাপারে আমার কর্তৃপকে ও শিক্ষক সমিতিকে জানিয়েছি। স্কুল খুললেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।
ওই স্কুলের শিক্ষক ও এলাকার অনেকেই জানান, যে ওই বিদ্যালয়ে একজন পিয়ন নিয়োগ দেওয়া হবে, তারেই জেরধরে এ ঘটনাটি ঘটেছে। ওই বিদ্যালয়ের সাবেক সভাপতি তহিদুল ইসলাম জানান, বিষয়টি আমি জেনেছি এটা দুঃখজনক।
প্রধান শিক্ষক কোনো বিষয়ে দোষী হলে তাকে মিটিংয়ের মাধ্যমে তার ব্যবস্থা করা যেতে পারে। কিন্তু কারো গায়ে হাত উঠানো ঠিক না।
বিদ্যালয়ের সভাপতি খুরশিদ আলমের কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে, তিনি তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ অস্বীকার করেন। জলঢাকা উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার চঞ্চল কুমার ভৌমিক জানান, আমি এখনো অভিযোগ পাইনি।অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
উপজেলা নির্বাহী অফসার মুহা. রাশেদুল হক প্রধান জনান, বিষয়টি আমি জেনেছি, তাদেরকে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful