Templates by BIGtheme NET
আজ- বুধবার, ২৮ অক্টোবর, ২০২০ :: ১৩ কার্তিক ১৪২৭ :: সময়- ৮ : ৩৭ অপরাহ্ন
Home / ঠাঁকুরগাও / অনেককেই চিনেন না ভোটাররা!

অনেককেই চিনেন না ভোটাররা!

Thakurgaonঠাকুরগাঁও : আসন্ন দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণের জন্য ঠাকুরগাঁও জেলা আওয়ামী লীগের ৯ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন। অথচ এদের অনেককেই চেনেন না সাধারণ ভোটাররা। এমন মন্তব্য কয়েকজন ভোটারের।

মাঠ পর্যায়ে এসব নেতার জনপ্রিয়তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে সাধারণ মানুষ। নিজ দলের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অনেকেই বলেছেন, এসব নেতাকে কোন দিনও প্রচার প্রচারণা করতে দেখা যায়নি। অথচ নিজেদের পরিচিত করার জন্য তারা মনোনয়ন জমা দিয়েছেন।

অনেকে ভাবছেন পানিসম্পদ মন্ত্রী রমেশ চন্দ্র সেনের সঙ্গে অভ্যন্তরীণ কোন কোন্দলের কারণে কি মনোনয়ন কিনেছেন এসব প্রার্থী? এ নিয়ে শহর জুরে চলছে নানান গুঞ্জন।

তাহলে এবার ঠাকুরগাঁও-১ আসন থেকে চূড়ান্ত মনোনয়ন কে পাচ্ছেন এটি দেখার অপেক্ষায় সাধারণ মানুষ।

মনোনয়ন জমাদান কারীরা হলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পানিসম্পদমন্ত্রী রমেশ চন্দ্র সেন, সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট মকবুল হোসেন বাবু, সাধারণ সম্পাদক সাদেক কুরাইশী, সাংগঠনিক সম্পাদক ও পৌর মেয়র এসএমএ মঈন এবং দীপক কুমার রায়, আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট ইন্দ্রনাথ রায় ও সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অরুনাংশ দত্ত টিটো, জেলা মহিলা লীগের আহবায়ক দ্রৌপদী দেবী আগারওয়ালা এবং জেলা মহিলা পরিষদের সভাপতি মনোয়ারা চৌধুরী।

সদর উপজেলার ঢোলারহাট গ্রামের নাসিরুল ইসলাম নামে এক আওয়ামী লীগ সমর্থক জানান, কয়েকজন নেতা গোপনে মনোনয়ন ক্রয় করে জমা দিয়েছেন। তাদের মধ্যে অনেক নেতার নামও শুনিনি।

তবে প্রবীন রাজনৈতিক আখতার হোসেন রাজা মনে করেন, জনমতে আমেজ সৃষ্টি করার জন্য ঠাকুরগাঁ-১ আসনের আওয়ামী লীগের ৯ প্রার্থী মনোনয়ন ক্রয় করে জমা দিয়েছেন।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ঠাকুরগাঁও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাদেক কুরাইশী জানান, আমি নির্বাচনে অংশগ্রহণের জন্য প্রস্তুত। আমি কাউকে ছোট করার জন্য মনোনয়ন ক্রয় করিনি। এটি একটি গণতান্ত্রিক অধিকার। নেত্রী যাকে প্রার্থী ঘোষণা করবেন তার পক্ষেই নির্বাচন করব।

জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাডভোকেট মকবুল হোসেন বাবু বলেন, নির্বাচনের জন্য আগে থেকে প্রস্তুতি নিয়েছি। তাই মনোনয়ন পত্র ক্রয় করে জমা দিয়েছি।

ঠাকুরগাঁও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পানিসম্পদ মন্ত্রী রমেশ চন্দ্র বলেন, মনোনয়ন ক্রয় করা গণতান্ত্রিক অধিকার। যোগ্যতা অনুযায়ী মনোনয়ন ক্রয় করতে পারবে। আশা রাখি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রার্থী ঘোষণা করলে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব।

২০০৮ সালের নির্বাচনে ঠাকুরগাঁও-১ আসনে রমেশ চন্দ্র সেন নৌকা প্রতীক নিয়ে ৫৬ হাজার ৬ শ ৯০ ভোটের ব্যাবধানে ধানের শীষ প্রতীকে বর্তমান বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে পরাজিত করেন।

উল্লেখ, হালনাগাদ ভোটার অনুযায়ী ঠাকুরগাঁও-১ আসনে ভোটারের সংখ্যা মোট ৩ লাখ ৬৮ হাজার ৭শ’ ২৪ জন। এরমধ্যে ১ লাখ ২০ হাজার হিন্দু ভোটার হওয়ায় আওয়ামী লীগ আবারো আশাবাদী এই আসনটি নিয়ে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful