Templates by BIGtheme NET
আজ- রবিবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২০ :: ১০ কার্তিক ১৪২৭ :: সময়- ১০ : ২৮ অপরাহ্ন
Home / লালমনিরহাট / লালমনিরহাটে দফায় দফায় সংঘর্ষঃ গুলি, টিয়ারশেল নিক্ষেপ; আহত-২০

লালমনিরহাটে দফায় দফায় সংঘর্ষঃ গুলি, টিয়ারশেল নিক্ষেপ; আহত-২০

BNP Oborodh Pic.......28.11.13 (2)জিন্নাতুল ইসলাম জিন্না, লালমনিরহাট: লালমনিরহাট সদর উপজেলার মহেন্দ্রনগর বাজার এলাকায় বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৯টায় অবরোধকারী-আইন শৃংখলা বাহিনীর সাথে দফায় দফায় সংঘর্ষে ২০ জন গুরুতর আহত হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশ আব্দুর রহমান নামে এক পথচারীকে আটক করেছে।

অবরোধকারীরা মহেন্দ্রনগর রেলস্টেশনের অদুরে রেল লাইন উপড়ে ফেলে সেখানে অবস্থান নিয়ে অবরোধ করে রাখে। এ সময় আইন শৃংখলা বাহিনীর সাথে অবরোধকারীদের দফায় দফায় সংঘর্ষ শুরু হয়। এক পর্যায়ে আইন শৃংখলা বাহিনীর সদস্যরা অবরোধকারী ও গ্রামবাসীর উপর টিয়ার সেল, রাবার বুলেট ও অর্ধশতাধিক রাউন্ড গুলি বর্ষন করে। গুলির আঘাতে কমপক্ষে ২০ আহত হয়।

সকাল ১১টার দিকে অবরোধকারীরা বুড়িরবাজার, ফড়িংএর দীঘি, পাঠান পাড়া ও চিনি পাড়া এলাকা থেকে কয়েক হাজার ১৮দলীয় জোটের নেতাকর্মী ও সমর্থক সমবেত হয়ে চার দিক থেকে আইন শৃংখলা বাহিনীকে মহেন্দ্রনগর খাঁন মার্কেট ও স্টেশন এলাকায় অবস্থানরতদের ঘিরে ফেলে এবং পুলিশের গুলি বর্ষন, টিয়ার সেল নিক্ষেপ ও রাবার বুলেট ছোড়ার প্রতিবাদে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করলে আইন শৃংখলা বাহিনী উত্তেজিত হয়ে বুড়িরবাজার এলাকার আছির উদ্দিন কিন্ডার গার্ডেন স্কুলে ঢুকে কমলমতি ছাত্র-ছাত্রী, অভিভাবক ও শিক্ষকদের উপর এলোপাথারী লাঠি চার্জ করলে আনিছুর নামে এক অভিভাবকের মাথা ফেটে গুরুতর আহত হয়। এরপর থেমে থেমে অবরোধকারী ও আইন শৃংখলা বাহিনীর মধ্যে সংঘর্ষ চলতেই থাকে। এ সময় ওই এলাকা রনক্ষেত্রে পরিনত হয়।

BNP Oborodh Pic..28.11গত ৩দিনের লাগাতার অবরোধের কর্মসুচিতে অবরোধকারীরা লালমনিরহাট সদর উপজেলার ঢাকা-বুড়িমারী, মহেন্দ্রনগর-বড়বাড়ী ও রংপুর-কুড়িগ্রাম মহাসড়কের পাশের গাছ কেটে কমপক্ষে ১০টি স্পটে অবরোধ সৃষ্টি করে রাখে। ফলে ওই এলাকা গুলোতে আইন শৃংখলা বাহিনীর সদস্যরা কোন ভাবেই প্রবেশ করতে পারেনি। লালমনিরহাট রেল বিভাগ থেকে লালমনিরহাট-বুড়িমারী, পারবতীপুর-চিলমারী, লালমনিরহাট-সান্তাহার সেকশনে সকল প্রকার ট্রেন চলাচল বন্ধ ছিল। তবে লালমনিরহাট-ঢাকা সেকশনে লালমনি এক্সপ্রেস বুধবার ছেড়ে গেলেও এ ট্রেনটি অবরোধের মুখে পড়ে সিডিউল বিপর্যয় ঘটে।

এদিকে লালমনিরহাটের বাউড়ার সফেরহাটে ৩ জামায়েত নেতাকে আটকের জের ধরে ওই এলাকার ৩টি বাড়ীতে অগ্নি সংযোগ ও দুইটি দোকানে ভাঙচুর চালায়। এতে ভয়ে ভীত হয়ে ওই এলাকার লোকজন ভারতের ছিটমহলে আশ্রয় নিয়েছে।

এ ব্যাপারে লালমনিরহাট সহকারী পুলিশ সুপার আল আসাদ মাহফুজুল ইসলামের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ৮ রাউন্ড গুলি, ৩০ রাউন্ড টিয়ার সেল ও রাবার বুলেট ছোড়ার কথা স্বীকার করেছেণ।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মহেন্দ্রনগর ও বুড়িরবাজার এলাকা জুড়ে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। আইন শৃংখলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে অতিরিক্ত দাঙ্গা পুলিশ, বিজিবি ও র‌্যাব মোতায়েন করা হয়েছে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful