Templates by BIGtheme NET
আজ- সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ :: ৮ আশ্বিন ১৪২৬ :: সময়- ৭ : ০৯ অপরাহ্ন
Home / নীলফামারী / নীলফামারীতে ৫৬টি বসতঘর পুড়ে ছাই॥ দুই গরু ৬ ছাগল শতাধিক হাঁস মুরগীর মৃত্যু

নীলফামারীতে ৫৬টি বসতঘর পুড়ে ছাই॥ দুই গরু ৬ ছাগল শতাধিক হাঁস মুরগীর মৃত্যু

ইনজামাম-উল-হক নির্ণয়,নীলফামারী ৮ সেপ্টেম্বর॥ বিধ্বংসী আগুনে ১৮ পরিবারের ৫৬টি টিনের বসত ঘর, আসবাবপত্র ও নগদ অর্থ পুড়ে ছাই হয়েছে। আগুনে দ্ধগ্ধ হয়ে মারা গেছে দুইটি গরু,৬টি ছাগল ও তিন শতাধিক হাঁস মুরগী,কবুতর।
আজ রবিবার(৮ সেপ্টেম্বর) ভোরে নীলফামারীর ডোমার উপজেলার হরিণচড়া ইউনিয়নের পশ্চিম হরিণচড়া গ্রামে এই ঘটনাটি ঘটে। প্রায় ৪ ঘণ্টার চেষ্টায় দমকলের নীলফামারী ও ডোমারের চারটি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।
ভোর তখন ৪টে। গ্রামবাসীরা সকলেই ঘুমে আচ্ছন্ন। আগুন যে লেগেছে অনেকেই প্রথমে টের পাননি। বুঝতে পারলেন,যখন গ্রামের কৃষক জীতেন চন্দ্র রায়ের বাড়ীর গোয়াল ঘরের গরু ও ছাগলের গগন বিদারন হাকডাক। ততক্ষনে আগুনের লেলিহান শিখা চারিদিকে ছড়িয়ে পড়তে শুরু করেছে। গ্রামবাসী ঘুম থেকে উঠেই যে যার মতো ঘর হতে বেড়িয়ে প্রাণ রক্ষা করলেও বসতঘরের কিছুই রক্ষা করতে পারেনি।
গ্রামবাসীর বরাত দিয়ে ইউপি চেয়ারম্যান আজিজুল ইসলাম জানান কৃষক জীতেনের বাড়ির গোয়াল ঘরে মশা তাড়ানোর কয়েল হতেই মুলত আগুনের সুত্রপাত হয়। এতে ১৮ পরিবারের ৫৬ টি টিনের বসতঘর, আসবাবপত্র, স্কুল ও কলেজের শিক্ষার্থীদের পাঠপুস্তক, নগদ অর্থ, ধান চাল পাট,পিয়াজ রসুন,আলুর বীজ পুড়ে ছাই হয়। এতে জিতেন চন্দ্রের ৬টি ঘর, ২টি গরু ও ৬টি ছাগল, রিনা রানীর ২টি ঘর, বিশ^নাথ রায়ের ৬টি, গলিরাম রায়ের ৩টি, বিমল চন্দ্র রায়ের ৩টি, সুমন চন্দ্রের ৩টি, জগদ্বিস চন্দ্রের ৪টি, শুশিল চন্দ্রের ৩টি, লক্ষি কান্তের ৪টি ঘর ও ৩০ হাজার টাকা, সত্যেন চন্দ্রের ৩টি, হরি সংকরের ৪টি ঘর ও ৬০ হাজার টাকা, জয় দেবের ৫টি ঘর, সুমিত্রা রানীর ২টি, অনিল চন্দ্রের ২টি, অধির চন্দ্রের ২টি, জয় শংকরের ১টি, ডালিম ইসলামের ২টি ও লোক নাথের ১টিসহ মোট ৫৬টি ঘর, গরু-ছাগল, ধান, চাল নগদ অর্থসহ আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ডোমার ও নীলফামারী সদরের দুইটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে।
রবিবার সকাল ১১ টার দিকে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উম্মে ফাতিমা, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জিয়াউর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে প্রতি পরিবারকে সরকারী ভাবে ১০ কেজি করে চাল, এক কেজি করে,চিড়া,ডাল চিনি ,নুডুলস প্যাকেট, এক লিটার করে সোয়াবিন তেল,লবন আধা কেজি করে বিতরন করেন। এ ছাড়া ডোমার প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জিয়াউর রহমান জানান ক্ষতিগ্রস্থ ১৮ পরিবারকে জিআর ফান্ড হতে দুই বান্ডিল করে ঢেউটিন ও নগদ ৬ হাজার টাকা করে প্রদানের ব্যবস্থা করা হয়েছে। অচিরেই তা বিতরন করা হবে বলে তিনি জানান।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful