Templates by BIGtheme NET
আজ- বুধবার, ১৩ নভেম্বর, ২০১৯ :: ২৯ কার্তিক ১৪২৬ :: সময়- ১২ : ২২ অপরাহ্ন
Home / টপ নিউজ / সঙ্গীর যে আচরণ ভুলেও এড়িয়ে যাবেন না

সঙ্গীর যে আচরণ ভুলেও এড়িয়ে যাবেন না

ডেস্ক: একটা প্রেমের সম্পর্কের শেষ পরিকল্পনা থাকে বিয়ে। সম্পর্কটা যেমনভাবেই চলুক না কেনো। কিন্তু বিয়ের কথাটা যেনো আগায় না। যেন একটা জায়গাতেই আটকে আছে। সামনেও এগুচ্ছে না, পেছনেও যাচ্ছে না। সম্পর্কের ভবিষ্যৎ নিয়ে সন্দিহান হয়ে পড়লে সিদ্ধান্ত যা নেবার এমন সময় নিতে হবে। সঙ্গী/সঙ্গীনির কিছু আচরণই বলে দেবে যে, সে আসলে কি চায়।

১. ভবিষ্যত নিয়ে কথা অগ্রাহ্য করেন: আপনি যখনই ভবিষ্যত নিয়ে তার সঙ্গে কথা বলতে চান তিনি কি অস্বস্তি বোধ করেন বা আপনাকে এড়িয়ে চলেন? অথবা আপনি যখনই বিষয়টি তোলেন তিনি বিষয়টি দূরে সরিয়ে দেন? তাহলে এখনই সতর্ক হয়ে যান। তার মাথায় হয়তো ভিন্ন কিছু ঘুরঘুর করছে। এটি হতে পারে একটি লক্ষণ যে তিনি আপনাকে বিয়ে করতে চান না।

২. কখনোই পরিবারে নিয়ে যায় না: আপনার রক্তের সম্পর্কের সকলেই হয়তো তার সম্পর্কে জানেন কিন্তু আপনি শুধু তার বন্ধু মহলেই পরিচিত। এটিও একটি বাজে লক্ষণ যে তিনি আপনাকে তার বাবা-মা বা পরিবারের কোনো সদস্যের কাছে নিয়ে যান না।

৩. আমি এখনো প্রস্তুত নই: আপনারা হয়তো দীর্ঘদিন ধরে ডেটিং করছেন। পার্টনার হয়ত আয়-রোজগারও ভালোই করছেন। কিন্তু এরপরও তিনি শুধু বলছেন আমি এখনো বিয়ের জন্য প্রস্তুত নই। এমনটা হলে বুঝবেন তিনি হয়তো আর কখনোই প্রস্তুত হতে পারবেন না।

৪. বিয়েবিরোধী: বিয়ে সম্পর্কে তার চিন্তা ভাবনা সুন্দর নয় বলে মনে হয়? তার তালিকায় কি বিয়ে বন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার বিষয়টি একেবারে শেষের দিকে রয়েছে? বা তিনি কি বিয়েকে একটি আত্মহত্যার মিশন মনে করেন? তাহলে আপনার উদ্বিগ্ন হওয়ার যথেষ্ট যৌক্তিক কারণ রয়েছে। এই ধরনের ঠাণ্ডা চিন্তা-ভাবনা আপনার ভবিষ্যৎকে অন্ধকারাচ্ছন্ন করে তুলবে।

৫. আপনার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনায় তিনি আগ্রহী নন: আপনি হয়তো চাইলে তার নিজের এবং তিনি ভবিষ্যতে কী করতে চান সে সম্পর্কে পুরো একটি বই লিখে ফেলতে পারবেন। কিন্তু আপনার নিজের জন্য স্টোরে কী জমা রয়েছে সে সম্পর্কে কি তিনি কিছু জানেন? তিনি কি আদৌ এ ব্যাপারে আগ্রহী? বিষয়টি নিয়ে ভাবুন।

৬. আপনাদের ডেটিংগুলো শুধু বিছানাতেই সীমাবদ্ধ থাকে: আপনি হয়তো শহরের সবচেয়ে রোমান্টিক রেস্টুরেন্টে মোমবাতির আলোতে ডিনারের আয়োজন করলেন কিন্তু তিনি সেটি ভেস্তে দিলেন। ফলে শুধু বিছানায় এবং পপকর্ন খাওয়া ও নেটফ্লিক্সেই আপনাদের ডেটিং সীমাবদ্ধ রইল। এটা ঠিক যে, এ ধরনের ডেটিংই সবচেয়ে আরামদায়ক। কিন্তু সবসময় এটা ঠিক না। বিছানা ডেটিং মানে এই সম্পর্ক আর সামনে এগোনোর সম্ভাবনা একেবারেই ক্ষিণ।

৭. তিনি কখনোই ওই যাদুকরী শব্দগুলো উচ্চারণ করেন না: আপনি প্রায়ই তার প্রতি আপনার ভালোবাসা মৌখিকভাবে বারবার প্রকাশ করেন। কিন্তু তিনি যতটা সম্ভব ঠিক ততটা উন্নসিকভাবে তা অগ্রাহ্য করেন। তিনি আপনাকে ওই যাদুকরী শব্দগুলো বলার ক্ষেত্রে নিজের ‍ওপর সীমা আরোপ করে রেখেছেন। এমনটা হলে এখনই সতর্ক হন।

৮. তিনি সবার আগে লিভ-ইন করতে চান: তিনি আপনাকে বিয়ে ছাড়াই একসঙ্গে থাকতে জোরাজুরি করেন, বারবার বলেন, ‘বিয়ে তো করবোই, তাহলে একসঙ্গে থাকতে সমস্যা কোথায়?’ এমনটা হলে সাবধান। বুঝে নেবেন সঙ্গীর মতলব ভালো না। মনে রাখবেন বিয়ে কোনো শো বা খেলা নয় যে চুড়ান্তভাবে দাম্পত্য জীবন শুরু করার আগে অনুশীলন করতে হবে।

৯. দুঃখের নয় শুধু সুখের ভাগিদার: আপনি কি শুধু তার সুখের ভাগিদার, কিন্তু তার দুঃখের মুহূর্তগুলোতে তিনি আপনাকে তার পাশে চান না? অথচ কথিত আছে, “সুখের মুহূর্তগুলো চাইলে যে কারো সঙ্গেই ভাগাভাগি করা যায়, কিন্তু দুঃখের মুহূর্তগুলোতে বিশেষভাবে ঘনিষ্ঠ কাউকেই দরকার হয়।” এখন আপনি যদি তার সেই বিশেষভাবে ঘনিষ্ঠ কেউ না হন তাহলে আপনার উদ্বিগ্ন হওয়ার যথেষ্ট কারণ আছে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful