Home / নীলফামারী / গভীর রাতে ছিন্নমুলদের গায়ে কম্বল জড়িয়ে দিলেন নীলফামারী জেলা প্রশাসক

গভীর রাতে ছিন্নমুলদের গায়ে কম্বল জড়িয়ে দিলেন নীলফামারী জেলা প্রশাসক

ইনজামাম-উল-হক নির্ণয়,নীলফামারী ১০ ডিসেম্বর॥ চারিদিকে শুনশান। রাতের সকল ট্রেন চলে গেছে। নীলফামারী রেলষ্টেশনটিতে রাতে আশ্রয় নেয়া ছিন্নমুল মানুষগুলো বসে-শুয়ে আছে। শীতের রাতে বৈইছে হিমেল হাওয়া। রাত গভীর হলে ঠান্ডাও বাড়ে। এ অবস্থায় সোমবার(৯ ডিসেম্বর) গভীর রাতে নীলফামারী স্টেশনে হাজির হলে জেলা প্রশাসনের উর্দ্ধতন কর্মকর্তাগণ। নেতৃত্বে ছিলেন জেলা প্রশাসক হাফিজুর রহমান চৌধুরী। স্টেশনের প্ল্যাটফর্মে নির্জন পরিবেশে ঘুমিয়ে থাকা ছিন্নমুল মানুষরা বুঝতে পারেননি তাদের শরীরে শীত নিবারণের জন্য দেয়া হয়েছে একটি করে কম্বল।এরই মধ্যে শোরগোলে বুঝতে আর বাকি থাকেনি। ঘুমিয়ে থাকা অন্যদের মাঝে। সবাই ঘুম থেকে উঠে স্ব স্ব জায়গায় অপো করছে।তাদের প্রত্যেকের শরীরে একটি করে কম্বল জড়িয়ে দেন জেলা প্রশাসক হাফিজুর রহমান চৌধুরী।
স্বামী পরিত্যক্তা গাইবান্ধা জেলার উষা রানী বলেন, হামার কাহো নাই বা।খুব ভালো হইল।একটা কম্বল পায়া।কয়দিন থাকি খুব ঠান্ডা। যায় দিসে তার ভালো হইবে’। প্রমিলা রানী নামে আরেক নারী বলেন, হামরা পাই না। যার আছে ওমরায় পায়।ঠান্ডাত কম্বলটা খুব কাজে দিবে।
একই রাতে শহরের বড় বাজার, চৌরঙ্গি মোড়, ফুলতলা ও কালিতলা বাসস্ট্যান্ডে দেড়’শ অসহায় দরিদ্র ব্যক্তিদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয় শীত নিবারণের জন্য।
এ সময় স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক আব্দুল মোতালেব সরকার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) আজাহারুল ইসলাম, সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এলিনা আখতার, জেলা ত্রাণ ও পুর্নবাসন কর্মকর্তা সৈয়দ আবুল হায়াত উপস্থিত ছিলেন।
জেলা প্রশাসক হাফিজুর রহমান চৌধুরী বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শীত মোকাবেলায় বিশেষ নির্দেশনা দিয়েছেন। যাতে কেউ কষ্টে না থাকে। তারই হয়ে নীলফামারীতে দরিদ্র অসহায় মানুষদের মাঝে কম্বল বিতরণের কর্মসুচী বাস্তবায়ন করছে জেলা প্রশাসন।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful