Templates by BIGtheme NET
আজ- সোমবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৯ :: ৬ কার্তিক ১৪২৬ :: সময়- ৬ : ১৩ পুর্বাহ্ন
Home / লালমনিরহাট / কালীগঞ্জে মাদ্রাসার প্রাক্তন সুপারকে পুনর্বহালের দাবিতে বর্তমান মাদ্রাসা সুপারের উপর হামলা, সাংবাদিকসহ আহত-৩০

কালীগঞ্জে মাদ্রাসার প্রাক্তন সুপারকে পুনর্বহালের দাবিতে বর্তমান মাদ্রাসা সুপারের উপর হামলা, সাংবাদিকসহ আহত-৩০

কালীগঞ্জ(লালমনিরহাট)প্রতিনিধি॥ লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার ভুল্লারহাট আশরাফিয়া দাখিল মাদ্রাসার প্রাক্তন সুপার শহীদুল ইসলামের পুনর্বহালের দাবিতে স্থানীয় একটি স্বার্থান্বেষী মহলের ইন্ধনে অবৈধভাবে বিক্ষুব্ধ জনতা মঙ্গলবার দুপুরে বর্তমান মাদ্রাসা সুপার আ.ন.ম আবুল কালাম আজাদসহ ম্যানেজিং কমিটির সদস্যদের উপর হামলা করে। এতে সাংবাদিক সহ কমপক্ষে ৩০জন আহত হয়। আহতদের স্থানীয় কালীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

কালীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আমিরুল ইসলাম,কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিরুজ্জামান ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন। সংঘর্ষের আশংকাসহ এলাকায় থমথমে পরিবেশ বিরাজ করায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

এলাকাবাসী,মাদ্রাসা কমিটি এবং সরেজমিনে জানা গেছে, উপজেলার ভুল্লারহাট আশরাফিয়া দাখিল মাদ্রাসার প্রাক্তন সুপার শহীদুল ইসলাম বিগত চারদলীয় জোট সরকারের আমলে জেএমবি মামলায় গত ১০/১২/২০০৫ হতে উনিশ মাস জেল-হাজতে থাকার পর কর্তৃপক্ষের বিনা অনুমতিতে গত ১২/৮/২০০৯ তারিখে সৌদি আরব যান। তার অনুপস্থিতিতে ওই মাদ্রাসার সহকারী সুপার আ.ন.ম আবুল কালাম আজাদকে গত ২০/৮/২০০৯ তারিখে ভারপ্রাপ্ত সুপার হিসেবে নিয়োগ করা হয়। প্রাক্তন সুপার শহীদুল ইসলাম দু’বছর বাইরে থাকায় ওই মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটি কর্তৃক প্রথমে সাময়িক বরখাস্ত এবং পরবর্তীতে গত ২৮/৩/২০১১তারিখে বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড কর্তৃক চূড়ান্তভাবে বরখাস্ত হন। এর পর সরকারী বিধি মোতাবেক আ.ন.ম আবুল কালাম আজাদকে গত ৭/৪/২০১১ তারিখে সুপার হিসেবে নিয়োগ করা হয়।

এর জের ধরে একটি স্বার্থান্বেষী মহলের ইন্ধনে অবৈধভাবে প্রাক্তন সুপার শহীদুল ইসলামের পুনর্বহালের দাবিতে মাদ্রাসায় বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে আসছিল।  মঙ্গলবার দুপুরে মাদ্রাসা সুপার আ.ন.ম আবুল কালাম আজাদসহ ম্যানেজিং কমিটির সদস্যরা ওই মাদ্রাসায় গেলে বিক্ষুব্ধ জনতা লাঠিসোটা দিয়ে তাদের উপর হামলা করে। এতে সংবাদ সংগ্রহ ও ছবি তোলার সময় দৈনিক ডেসটিনি ও বাংলা নিউজের প্রতিনিধি, মাদ্রাসা সুপার আ.ন.ম আবুল কালাম আজাদ, শ্রুতিধর গ্রামের সাজু (৩২), সেকেন্দার আলী (৩০), কুদ্দুস সহ ৩০ জন আহত হয়।

উল্লেখ্য, গত ১৭/০৪/২০১১ মাদ্রাসা সুপার আ.ন.ম আবুল কালাম আজাদ এর পদত্যাগ ও প্রাক্তন সুপার শহীদুল ইসলামের পুনর্বহালের দাবিতে ছাত্র-ছাত্রী, অভিবাবক,এলাকাবাসী লালমনিরহাটের জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি পেশ করেছিলেন।
এ ব্যাপারে কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিরুজ্জামান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ঘটনার প্রেক্ষিতে কেউ মামলা করলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful