Templates by BIGtheme NET
আজ- বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০ :: ১৫ আশ্বিন ১৪২৭ :: সময়- ৫ : ৩০ পুর্বাহ্ন
Home / টপ নিউজ / ঠাকুরগাঁও শিক্ষক কর্তৃক ছাত্রীকে যৌন হয়রানি

ঠাকুরগাঁও শিক্ষক কর্তৃক ছাত্রীকে যৌন হয়রানি

ঠাকুরগাঁও ॥ ‘অন্যদের চেয়ে পড়া কম পারি বলে স্যার আমাকে প্রায় দিনই মারধর করেন। একদিন স্যার আমাকে বললেন, তুমি তো পড়া পার না, আগামীকাল থেকে একটু আগে স্কুলে আসবে, আমি তোমাকে ভালোভাবে পড়া বুঝিয়ে দিবো। স্যারের কথা মতো পরের দিন এক ঘণ্টা আগে সকাল ৮টায় স্কুলে যাই। এতো সকালে কেউ আসেনি। কিছুক্ষণ পর স্যার এলেন। তিনি ক্লাসরুম খুলে দিয়ে আমাকে ভিতরে বসতে বললেন। স্যারের কথা মতো আমি ভেতরে গিয়ে বসলাম। এরপর স্যার এসে ভেতর থেকে দরজা বন্ধ করে আমার কাছে এসে বসলেন। এ সময় তিনি অনেক আজেবাজে প্রস্তাবসহ আমার শরীরের স্পর্শকাতর স্থানে হাত দিয়ে কথা বলতে লাগলেন। এসময় লজ্জায়, ঘৃণা আর ভয়ে তো আমার প্রাণ যাওয়ার উপক্রম । কিছুক্ষণ পর সবাই স্কুলে আসতে শুরু করলে তিনি আমাকে ভয় দেখিয়ে বললেন, একথা কাউকে বললে তোমাকে স্কুল থেকে বের করে দিবো, আর কোথাও ভর্তি হতে পারবে না।’

এভাবেই স্যারের বিভিন্ন অপকর্মের কথা অকপটে বলে যায় ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার বৈকণ্ঠপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণীর এক ছাত্রী। ওই ছাত্রী আরও জানাল, এ ঘটনা শুধু তার সঙ্গে নয়, স্কুলের আরও অনেক ছাত্রীর সঙ্গে স্যার এখনও এসব আচরণ করে চলেছেন।

অভিযুক্ত ওই শিক্ষকের নাম মোহামুদুল্লাহ। তিনি ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা বৈকুন্ঠপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক।

এ বিষয়ে সরেজমিনে অনেকের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, একই অভিযোগে  গত শনিবার ওই স্কুলের ৩য় শ্রেণীর এক ছাত্রীর বাবাসহ কয়েক অভিভাবক শিক্ষক মোহামুদুল্লাহর বিরুদ্ধে স্কুল ম্যানিজিং কমিটি ও প্রধান শিক্ষক বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

লিখিত অভিযোগে বলা হয়, সম্প্রতি ওই স্কুলের সহকারী শিক্ষক মোহামুদুল্লাহ একই স্কুলের ৩য় শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ক্লাসরুমে ডেকে নিয়ে শ্লীলতাহানির ঘটনা ঘটান।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক অভিভাবক জানান, নানা প্রলোভন দেখিয়ে কোমলমতি ছাত্রীদের শ্লীলতাহানি করেন ওই শিক্ষক। এর আগে অভিযুক্ত ওই শিক্ষকের একই ধরনের একটি ঘটনার মীমাংসা করে দেয়া হয়েছিল।

এ ব্যাপারে স্কুলের অন্যান্য শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বললে তারা জানায়, প্রায়ই ওই স্যার ক্লাসরুমে ডেকে শরীরে হাত দেন। আমরা যেনো কাউকে না বলি সেজন্য ভয়ও দেখাতেন।

এ বিষয়ে ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আমিনুল ইসলাম জানান, কয়েকজন অভিভাবক সহকারী শিক্ষক মোহামুদুল্লাহর বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির উল্লেখ করে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে স্কুল ম্যানিজিং কমিটির মিটিং ডাকা হয়েছে।

তবে অভিযুক্ত ওই শিক্ষকের দাবি, এসব অভিযোগের কোনো ভিত্তি নেই। রাজনৈতিকভাবে হয়রানি করার জন্য তাদের বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ করা হয়েছে।

 

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful