Templates by BIGtheme NET
আজ- বুধবার, ২০ নভেম্বর, ২০১৯ :: ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ :: সময়- ১২ : ০৫ অপরাহ্ন
Home / রাজশাহী বিভাগ / সিরাজগঞ্জের উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিলেন ৪ মন্ত্রী

সিরাজগঞ্জের উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিলেন ৪ মন্ত্রী

sirajgonj সিরাজগঞ্জ: চলমান বিভিন্ন প্রকল্প এলাকা পরিদর্শন শেষে সিরাজগঞ্জের উন্নয়নে প্রতিশ্রুতি দিলেন বর্তমান সরকারের ৪ মন্ত্রী (শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম, বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন ও পানিসম্পদ মন্ত্রী ব্যারিষ্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ)।

বৃহস্পতিবার দুপুরে যমুনা নদীর তীরে অবস্থিত শহর রক্ষা বাঁধ হার্ডপয়েন্টে জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত নাগরিক সংবর্ধনা সভায় এ প্রতিশ্রুতি দেন তারা।

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেছেন, বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিমপাড় সয়দাবাদে ১৯৯৮ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিল্পপার্কের ভিত্তিফলক উন্মোচন করেছেন। ইতোমধ্যেই ভূমি অধিগ্রহণ শেষ হয়েছে। শিগগিরই মূল শিল্পপার্কের কাজ শুরু হবে।

বেসামরিক বিমান ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন বলেছেন, বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিমপাড় সয়দাবাদে অবস্থিত বঙ্গবন্ধু ইকো পার্ক, যমুনা নদী ড্রেজিংয়ের মাধ্যমে জেগে উঠা ক্রসবারের অভ্যন্তরের এলাকা ও নদীর হার্ডপয়েন্ট এলাকা ঘিরে পর্যটন কেন্দ্র এলাকা গড়ে তোলা হবে। চলতি বছর থেকে আগামী ২০১৮ সালের মধ্যে এসব প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।

পানি সম্পদমন্ত্রী ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ বলেছেন, শিল্পপার্ক তৈরির জন্য ওই এলাকায় এখন প্রস্তুত। সেখানে ইতোমধ্যেই নদী শাসন বাঁধ তৈরি করা হয়েছে। নদীতে ডেজিংয়ের বালু দিয়ে গড়ে উঠা ৪টি ক্রসবারের মধ্যে ৩ ও ৪ নম্বরের অভ্যন্তরের ইকোনোমিকজোন, ১ও ২ নম্বরের অভ্যন্তরে নতুন শহর গড়ে তোলা হবে। নদী ব্যবস্থাপনা উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় বঙ্গবন্ধু সেতু থেকে কুড়িগ্রাম পর্যন্ত নদী তীর দিয়ে ১৩ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে ১৩০ কিলোমিটার ফোরলেন সড়ক নির্মাণ করা হবে। এ প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে নদী তীরে ২০ হাজার হেক্টর জমি পুনরায় উদ্ধার হবে। অর্থায়নের জন্য বিশ্ব ব্যাংক প্রস্তুত রয়েছে। আগামী শুল্ক মৌসুমে এ প্রকল্পের কাজ শুরু করা হবে। শিল্পপার্ক এলাকায় স্থায়ী বাঁধ নির্মাণের জন্য ৪১৫ কোটি ব্যয় হবে। এছাড়াও ৩৪৫ কোটি টাকা ব্যয়ে সদরের সিমলা থেকে কাজিপুর পর্যন্ত স্থায়ী বাঁধ নির্মাণ করা হবে।

সিরাজগঞ্জের উন্নয়নে ৩ মন্ত্রীর প্রতিশ্রুতি পেয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে বলেন, বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের পথে হাঁটছে। এ সকল প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন হলে সিরাজগঞ্জ হবে উন্নয়ন নগরী।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল লতিফ বিশ্বাসের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রফেসর হাবিবে মিল­াত মুন্না এমপি, নারী এমপি সেলিনা বেগম স্বপ্না ও সিরাজগঞ্জ পৌর মেয়র আব্দুর রউফ মুক্তা বক্তব্য রাখেন।

এর আগে সকালে মন্ত্রীরা শিল্পপার্ক, ইকোপার্ক, ইকোনোমিকজোন ও হার্ডপয়েন্ট এলাকা পরিদর্শন করেন।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful