আর্কাইভ  রবিবার ● ৫ ডিসেম্বর ২০২১ ● ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
আর্কাইভ   রবিবার ● ৫ ডিসেম্বর ২০২১

ভোট মানুষের পবিত্র আমানত, খেয়ানত যেন না হয়: গাইবান্ধায় ইসি কবিতা

শনিবার, ২ মার্চ ২০১৯, রাত ০৮:০৪

ডেস্ক: নির্বাচন কমিশনার কবিতা খানম বলেছেন, ভোট মানুষের পবিত্র আমানত-তা যেন কোনোভাবে খেয়ানত না হয়। নির্বাচনে অনিয়ম হলে কাউকে ছাড় দেয়া হবে না। ভোটাররা যেন নির্বিঘ্নে ভোটকেন্দ্রে এসে স্বাধীনভাবে ভোট দিতে পারে- তা নিশ্চিত করতে হবে। শনিবার বিকালে উপজেলা নির্বাচন উপলক্ষে গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলা সদর কালিরবাজারে নাহিপতেরহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ কর্মসূচিতে এসব কথা বলেন তিনি। উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল হালিম টলস্টয়ের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক মো. আব্দুল মতিন, পুলিশ সুপার প্রকৌশলী আব্দুল মান্নান মিয়া, জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং অফিসার মাহবুবুর রহমান প্রমুখ। এই প্রশিক্ষণ কোর্সে ফুলছড়ি উপজেলার ৪৬টি কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার, সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার এবং পোলিং অফিসারসহ মোট ৯৭৮ জন ভোটগ্রহণ কর্মকর্তা প্রশিক্ষণ নেন। কবিতা খানম বলেন, নির্বাচনের জন্য নির্ধারিত আগামী ১৮ তারিখ যেন একটি সফল তারিখ হিসেবে চিহ্নিত হয়। কোনোভাবেই তাকে ব্যর্থ হিসেবে পর্যবসিত হতে দেয়া যাবে না। কোনো অনিয়ম হলে কোনোভাবেই তা মেনে নেয়া হবে না। তিনি বলেন, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি যে কোনো মূল্যে সুশৃঙ্খল রাখতে হবে। যাতে ভোটারদের কোনো ক্ষতি না হয়। ইতি কবিতা খানম বলেন, ভোটকেন্দ্রে ভোটাররা প্রবেশের সঙ্গে সঙ্গে তার দায়িত্ব প্রিসাইডিং অফিসারের। তাকে স্বাধীনভাবে ভোটদানে সুযোগ করে দিতে হবে। কোনো কারণে পরিস্থিতির অবনতি ঘটলে ভোট বন্ধ করে রিটার্নিং অফিসারকে জানাতে হবে। রিটার্নিং অফিসার প্রয়োজনে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, ডিসি ও এসপিকে জানাবেন। নির্বাচন কমিশনকেও তা জানাতে হবে। তিনি আরও বলেন, প্রিসাইডিং অফিসারসহ অন্যদের যে ক্ষমতা- তা কোনোভাবেই অপব্যবহার করা চলবে না। যদি কোনো ভোটগ্রহণ কর্মকর্তা ইচ্ছাকৃতভাবে দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ হন তাহলে তিনি আইনের আওতার বাইরে থাকবেন না বলেও হুশিয়ারি দেন এ নির্বাচন কমিশনার।

মন্তব্য করুন


Link copied