Templates by BIGtheme NET
আজ- মঙ্গলবার, ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ::৬ আশ্বিন ১৪২৮ :: সময়- ৫ : ৩০ অপরাহ্ন
Home / নীলফামারী / করোনায় নীলফামারীতে আরও ২ জনের মৃত্যু॥ নতুন করে আক্রান্ত ৫৩ জন

করোনায় নীলফামারীতে আরও ২ জনের মৃত্যু॥ নতুন করে আক্রান্ত ৫৩ জন

স্টাফ রিপোর্টার,নীলফামারী॥ করোনার ছোবলে নীলফামারীতে আরও দুইজনের প্রাণ গেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দুইজনের মৃত্যুর পাশাপাশি নতুন করে আরও ৫৩ জনের শরীরে করোনায় শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়াল ৪৪ জনে। আজ বুধবার (১৪ জুলাই/২০২১) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নীলফামারী জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ জাহাঙ্গীর কবির। করোনায় মৃত্যু বরনকারী দুইজন হলেন জেলার ডোমার উপজেলার দক্ষিন গোমনাতী পন্ডিতপাড়া গ্রামের মৃত সেকেন্দার আলীর ছেলে আব্দুল হক(৭০)। তিনি গত ৮ জুলাই করোনা পরীক্ষায় সংক্রমন হয়ে নীলফামারী জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। অপরজন জেলার সৈয়দপুর উপজেলার চাঁদনগর মহল্লার মৃত ইসমাইল বদরের ছেলে আশিক বদর(৪০)। তিনি গত ৯ জুলাই নমুনা পরীক্ষায় করোনা সংক্রমন হয়ে রংপুরে চিকিৎসাধীন ছিলেন।
সংশ্লিষ্ট সুত্র মতে নীলফামারী করোনা শনাক্ত কিছুতেই কমছেনা। গেল ২৪ ঘণ্টায় ২৮৫ নমুনা পরীা করে ৫৩ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে সদর উপজেলায় ৪২ জন আক্রান্ত হয়েছে। এ ছাড়া ডোমারে ৩, সৈয়দপুরে ২, জলঢাকায় ৪ ও কিশোরীগঞ্জ উপজেলায় ২জন। পরীা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৮ দশমিক ৯৯ শতাংশ।
সুত্র মতে গত ২৪ ঘন্টায় জেলায় সুস্থ্য হয়েছে মাত্র ৪ জন। বর্তমানে ৬২২ জন করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এরমধ্যে জেলার জেনারেল হাসপাতালে ৪০ জন, সৈয়দপুর উপজেলা হাসপাতালে ৭ জন, ডোমার উপজেলা হাসপাতালে ১ জন, হোম কোয়ারাইটেনে রয়েছে ৫৬১ জন ও রংপুর মেডিকেলে স্থানান্তরিত করা হয় ১৫ জনকে। এ জেলায় করোনা ভাইরাস শুরু থেকে এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ২ হাজার ৫৬৬ জন। এরমধ্যে সুস্থ্য হয়েছে এক হাজার ৯০০ জন।
সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা যায় করোনা ভাইরাস শুরু হবার পর ২০২০ সালের ২৬ এপ্রিল থেকে ১৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত ২৬ জন করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যান। এরপর চলতি বছরের ৫ ফেব্রুয়ারী ১ জন, মার্চ মাসে ৪ জন, এপ্রিল মাসে ৩ জন, জুন মাসে ১ জন ও চলতি জুলাই মাসের ১৩ তারিখ পর্যন্ত ৯ জন সহ সর্বমোট ৪৪ মৃত্যু বরন করেন।
এদিকে নীলফামারীর সচেতন মহল অভিযোগ করে জানান জেলা সদরে আক্রান্তদের মধ্যে বিশেষ করে উত্তরা ইপিজেডের চীনা নাগরিক ও শ্রমিকদের সংখ্যা সব থেকে বেশী। কঠোর লকডাউন চলাকালিন ইডিজেড খোলা থাকায় সেখানে প্রতিদিন ৩৫ হাজার শ্রমিক আসা যাওয়া করছে। এটি সুত্র জানায় গত ৫ দিনে ইপিজেডে ১৫ জন চীনা নাগরিক ও দেড় শতাধিত শ্রমিক করোনা আক্রান্ত হয়।
জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সূত্র মতে, বিধিনিষেধ অমান্য করে বাহিরে অযথা ঘুরে বেড়ানো ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলার দায়ে গত ২৪ ঘন্টায় ২০ট মামলায় ২৪ হাজার ৭০০ টাকার জরিমানা করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করে জেলা প্রশাসনের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মীর্জা মুরাদ হাসান বেগ।
সুত্র মতে পহেলা জুলাই হতে এ পর্যন্ত জেলায় মোট ৬৩৬ মামলায় ১৩ লাখ ৬৪ হাজার ৯৬০ টাকা আদায় ও ১৯জনকে ১৫দিন করে, ১ জনকে ১ মাসের ও ১ জনকে ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে।

Social Media Sharing

ăn dặm kiểu NhậtResponsive WordPress Themenhà cấp 4 nông thônthời trang trẻ emgiày cao gótshop giày nữdownload wordpress pluginsmẫu biệt thự đẹpepichouseáo sơ mi nữhouse beautiful