আর্কাইভ  রবিবার ● ৫ ডিসেম্বর ২০২১ ● ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
আর্কাইভ   রবিবার ● ৫ ডিসেম্বর ২০২১

নীলফামারী সদরের ১১টি ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন পত্র জমা দিলেন ৬৮ জন

রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, রাত ০৮:১৩

স্টাফ রিপোর্টার,নীলফামারী॥ দ্বিতীয় ধাপে অনুষ্ঠিত নীলফামারী সদর উপজেলার ১১টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের মনোনয়ন জমার শেষ দিন আজ রবিবার(১৭ অক্টোবর/২০২১) বিকাল ৫টা পর্যন্ত চেয়ারম্যান পদে ৬৮ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪০৩ জন এবং সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৫০ জনের মনোনয়নপত্র জমা হয়েছে। ৩০ সেপ্টেম্বর ওই ১১ ইউনিয়নে নির্বাচনী তফসীল ঘোষিত হলেও শেষ দিন আজ রবিবার উল্লেখযোগ্য সংখ্যক মনোনয়নপত্র জমা হয়। এদিকে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় নেতা-কর্মীদের সাথে নিয়ে দুপুর ১২টার দিকে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন নীলফামারী সদরের ১১টি ইউনিয়নের নৌকার মাঝিরা। তবে দলীয়ভাবে চেয়ারম্যান পদে ধানের শীর্ষ ও লাঙ্গনের প্রার্থী না থাকলেও ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ৫ জন ও বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টি ১ জন চেয়ারম্যান পদে দলীয়ভাবে মনোনয়ন জমা দেন। এছাড়া সতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পত্র জমা দেন ৫১ জন। উপজেলা নির্বাচন অফিস কার্যালয়ে উপনির্বাচনের রিটার্নিং ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর হোসেন ও সহকারী রির্টানিং ও উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আফতাব উজ্জামান এর কাছে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন তারা। সদর উপজেলা নির্বাচন অফিসের সুত্র মতে, ওই ১১ ইউনিয়নের মধ্যে চওড়া বড়গাছা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১১ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৩৫ জন। গোড়গ্রাম ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ১০জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৩জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৫জন। পলাশবাড়ি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৫জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১২জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৪৩জন। রামনগর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ২জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৫জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৫জন। কচুকাটা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৪জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৩জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩২জন। পঞ্চপুকুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৯জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৫জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৪১জন। সোনারায় ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৩জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৬জন। সংগলশী ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৫জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১২জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৯জন। চড়াইখোলা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৮জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ২০জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৬জন। চাপড়া সরমজানী ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৮জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১৪জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৮জন। লক্ষ্মীচাপ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৩জন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১২জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৩ জন। চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়নের দিক থেকে আওয়ামী লীগের ১১টি ইউনিয়নে একজন করে মনোনয়ন জমা দিলেও রামনগর এবং কচুকাটা ইউনিয়ন বাদে অপর ৯টি ইউনিয়নের প্রতিটিতে রয়েছে বিদ্রোহী প্রার্থী। এছাড়া ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের পক্ষে চওড়াবড়গাছা, পলাশবাড়ী, সংগলশী, চড়াইখোলা ও চাপড়াসরমজানী ইউনিয়নে ১জন করে ও পলাশবাড়ী ইউনিয়নে ওয়ার্কাস পাটির একজন মনোনয়ন দাখিল করেছেন। বিএনপি ও জাতীয় পাটির দলীয় কোন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেনি । সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আফতাব উজ্জামান জানান, ঘোষিত পরিবর্তিত তফসিল অনুযায়ী দ্বিতীয় ধাপে সদর উপজেলার ১১টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ১৭ অক্টোবর, মনোনয়নপত্র যাছাই-বাছাই ২১ অক্টোবর, বাছাইয়ের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল ২৪ অক্টোবর, আপিল নিষ্পত্তি ২৫ অক্টোবর, প্রার্থিতা প্রত্যাহার ২৬ অক্টোবর, প্রতীক বরাদ্দ ২৭ অক্টোবর এবং ভোট গ্রহণ ১১ নভেম্বর। উল্লেখ যে, ২য় ধাপে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে সদর উপজেলার ১১টি ইউনিয়নের মোট ভোটর সংখ্যা ২ লাখ ১২ হাজার ৫ জন। নারী ভোটার ১ লাখ ৫ হাজার ১০৭ ও পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৬ হাজার ৮৯৮। ভোটকেন্দ্রের সংখ্যা ১০০টি ও ভোটকক্ষের সংখ্যা ৫৮৬টি।

মন্তব্য করুন


Link copied