আর্কাইভ  সোমবার ● ৩০ জানুয়ারী ২০২৩ ● ১৭ মাঘ ১৪২৯
আর্কাইভ   সোমবার ● ৩০ জানুয়ারী ২০২৩
 width=
 width=
শিরোনাম: নীলফামারী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেনীর ২৬ জন ছাত্রীর মানববন্ধন       নীলফামারী আইনজীবী সমিতির দ্বিবার্ষিক নির্বাচনে সভাপতি মমতাজুল ও সাধারণ সম্পাদক অক্ষয়       অপচয় বন্ধে করতে গুচ্ছ পদ্ধতি চালু করেছি: ডা. দীপু মনি       এসএসসি-সমমানের পরীক্ষা শুরু ৩০ এপ্রিল       জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার ২০২১ পাচ্ছেন যারা      
 width=

কোরবানীর গরু "বিগবস" দেখতে ক্রেতা ও সাধারণ মানুষের ভীড়

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন ২০২২, দুপুর ১২:১২

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি: নাম তার এলএলসি বিগবস৷ বয়স ৫ বছর ৬ মাস। ১০ ফুট লম্বা, ৫ ফুট ৬ ইঞ্চি উচ্চতা, ওজন ১ হাজার ৫৫০ কেজি বা ৩৮.৭৮ মণ। কোরবানীতে বিক্রি করার জন্য এমনি একটি গরু প্রস্তুত করেছেন আফিল উদ্দীন৷ যার বাজার মূল্য রাখা হয়েছে ৩৫ লাখ টাকা৷ 

ঠাকুরগাঁও হরিপুর উপজেলার ডাঙ্গীপাড়া ইউনিয়নের তালতলা গ্রামের বাসিন্দা আফিল উদ্দীন৷ পাঁচ বছর আগে গরুটি ক্রয় করেন তিনি। প্রাকৃতিক খাবার ও ফলমূল খাওয়ানোর পর বিশাল আকৃতির এ গরুটি প্রস্তুত করেছেন তিনি। সাথে ক্রেতার জন্য রাখা হয়েছে পুরস্কার। কোরবানির জন্য এ গরুটি ক্রয় করলে উপহার হিসেবে পাওয়া যাবে একটি পালসার মোটরসাইকেল।

উত্তরবঙ্গের সবচেয়ে বেশী ওজনের এ গরুটি নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে দেশজুরে। প্রতিনিয়ত গরুটি দেখার জন্য আলিফ উদ্দীনের বাসায় ভীড় করছেন উৎসুক জনতা। জেলার বাইরে থেকেও অনেক মানুষ এক পলক দেখার জন্য ভীড় জমাচ্ছেন তার বাসায়। ঢাকাসহ বিভিন্ন জেলা থেকেও ক্রয় করার জন্য ছুটে আসছেন অনেকে। তবে দামে না মেলায় কিনতে পারছেননা তারা৷ 

PMBA

গরুটি দেখতে আসা শহরের ফারুক হোসেন বলেন, আমি কিছুদিন আগে শুনেছি  হাতির মত দেখতে বলে গরু আছে। তাই আজকে নিজেই দেখতে আসলাম৷ আসলে বিশাল আকৃতির এটা গরু৷ এত বড় গরু আমি এর আগে আর কখনো দেখিনি৷ আর এই গরুটি রুম থেকে বাইরে নিয়ে আসতে ২০-২৫ জন লোক লাগছে৷ এক প্রকার মেলার মত উপভোগ করলাম বিগবস নামে এ গরুটি দেখতে এসে৷ 

প্রতিবেশী ইমরান হোসেন বলেন, তিনি গরুটির জন্য অনেক পরিশ্রম করেছেন। আমরা দেখেছি দুই তিনজন মানুষ দিয়ে হতনা৷ গরুটার পিছনে ওদের পরিবারের সবাই শ্রম দিয়েছে। তার ফল হিসেবে তারা এমন একটি গরু তৈরী করতে পেরেছে৷ আশা করছি কোরবানির ঈদে ভাল দামে বিক্রি করতে পারবেন৷ 

গরুটি কিনতে আসা ব্যবসায়ী জাকির আহমেদ বলেন, আমি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে গরুটি সম্পর্কে জানতে পারি। তারপরে এখানে গরুটি ক্রয় করার জন্য আসি। মালিক অনেক বেশী দাম চাওয়ায় আমি নিতে পারিনি। তবে গরুটি অনেক ভাল লেগেছে৷ যেমন নাম বিগবস তেমনি দেখতে৷ 

গরুর মালিক আলিফ উদ্দিন বলেন, আমি কোন গরু ব্যবসায়ী নই। শখের বসে এলএলসি জাতের গরুটি ক্রয় করেছিলাম এক বছর বয়সে৷ তারপরে এটির পিছনে পাঁচ বছর সময় দিয়েছি৷ গরুকে মোটাতাজা করার জন্য কোন প্রকার ঔষধ ব্যবহার করিনি। বিগবসকে খেসারির ডাল, ভুষি, ছোলাবুট, মসুর ডাল ও খুদ খাওয়ানো হয়েছে। আর রাতে আপেল, কলা ও আঙ্গুর খাওয়ানো হয়। এতে গড়ে আমার প্রতিদিন দুই হাজারের বেশী খরচ হয় তার পিছনে। তার চাল-চলণে নাম রেখেছি বিগবস। প্রতিদিন পাঁচ-সাত শত মানুষ আসেন বিগবস দেখতে। এই কোরবানির ঈদে বিগবস বিক্রি করার জন্য দাম রেখেছি ৩৫ লাখ টাকা। আর যিনি কিনবেন তার জন্য উপহার হিসেবে দেওয়া হবে একটি পালসার মোটরসাইকেল। এখন পর্যন্ত এটির দাম উঠেছে ২২ লাখ টাকা৷ 

হরিপুর উপজেলার উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ আবু কায়েস বিন আজিজ বলেন, এলএলসি বিগবস গরুটি আমাদের জেলার মধ্যে সবচেয়ে বড় আকৃতি ও৷ বেশী ওজনের গরু। আমরা আমাদের পক্ষ থেকে প্রায় সেটির খোঁজখবর নেয়। কোনকিছুর প্রয়োজন হলে বা পরামর্শ লাগলে তিনি আমাদের সাথে যোগাযোগ করেন৷ 

মন্তব্য করুন


Link copied