আর্কাইভ  রবিবার ● ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ ● ১০ আশ্বিন ১৪২৯
আর্কাইভ   রবিবার ● ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২
 
 
শিরোনাম: রংপুরে ভুয়া চাকুরীদাতা প্রতারক চক্রের ২ সদস্য গ্রেফতার       মরিয়ম মান্নানের মা জীবিত উদ্ধার; ছিলেন স্বেচ্ছায় আত্মগোপনে       ডেপুটি স্পিকারের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আ.লীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষ       এনআইডিতে লাগবে ১০ আঙুলের ছাপ       গাইবান্ধা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিদ্দিক, সম্পাদক মোজাম্মেল      

দুই বছর ধরে পড়ে আছে এক জোড়া ডেমু ট্রেন

রবিবার, ২৬ জুন ২০২২, সকাল ০৯:১৩

ফাইল ছবি

ডেস্ক: ২০২০ সালের ২৬ মার্চ থেকে প্রয়োজনীয় যন্ত্রাংশ ও রক্ষণাবেক্ষণের অভাবে পার্বতীপুরে এক জোড়া ডেমু ট্রেন দুই বছর দুই মাস ১৪ দিন ধরে বন্ধ রয়েছে। আধুনিক সুযোগ-সুবিধা সম্পন্ন ট্রেন দুটি যাত্রী পরিবহনে ভালো স্বাক্ষর রাখলেও এখন পড়ে আছে একটা পার্বতীপুর লোকোশেডে অন্যটি ডিজেলশপে। রক্ষণাবেক্ষণ ও মেরামতে যেসব যন্ত্রপাতি ও সরঞ্জাম প্রয়োজন, তা এ দেশে নেই। ডেমু ট্রেন দুটির মধ্যে পরীক্ষামূলকভাবে একটির দেশীয় প্রযুক্তিতে মেরামতের কাজ চলছে।

২০২১ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে ডেমু ট্রেনটি (১০০২৭ মটরকার/ ট্রেইলরকার ১০০২৮) পার্বতীপুর ডিজেলশপে ওভারহালিংয়ের জন্য পাঠানো হয়। ট্রেনের অন্যান্য কাজের অংশ হিসেবে মোটরকার, হাইড্রোলিক সিস্টেম, ব্রেকিং, কুলিং ও ফিটিং সিস্টেমের কাজ করছেন লোকোশেডের কর্মচারীরা।

২০২০ সালে যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে আরেকটি ডেমু ট্রেন (১০০২৫ মটরকার/ ট্রেইলরকার ১০০১৩) পার্বতীপুর লোকোশেডে রাখা হয়েছে। ট্রেন দুটি ঘণ্টায় ৮০ কিলোমিটার গতিসম্পন্ন ৩০০ যাত্রীর ধারণক্ষমতার। তিনটি বগির প্রতিটি ডেমু ট্রেনে ১৪৯ যাত্রীর বসার ও ১৫১ যাত্রীর দাঁড়িয়ে চলাচলের ব্যবস্থা রয়েছে। পার্বতীপুর-লালমনিরহাট রেলপথের ছিল পাঁচটি রেল স্টেশন—খোলাহাটি, বদরগঞ্জ, রংপুর, কাউনিয়া ও লালমনিরহাট। পার্বতীপুর থেকে ঠাকুরগাঁও ৯৪ কিলোমিটার রেলপথের জন্য ছিল পাঁচটি রেল স্টেশন চিরিরবন্দর, দিনাজপুর, সেতাবগঞ্জ, পীরগঞ্জ ও ঠাকুরগাঁওয়ে ডেমু ট্রেনের যাত্রাবিরতি। ২০১৩ সালের ২০ জুলাই এক জোড়া ডেমু ট্রেন পার্বতীপুরে আনে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। ২০১৩ সালের ২৭ আগস্ট পার্বতীপুর রেলওয়ে জংশন স্টেশনে ডেমু ট্রেনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়।

পার্বতীপুর লোকোশেডের ইনচার্জ সিনিয়র সহকারী প্রকৌশলী (এসএসএই/লোকোশেড) কাফিউল ইসলাম জানান, পরীক্ষামূলকভাবে দেশীয় প্রযুক্তিতে একটা ডেমু ট্রেন মেরামতের কাজ চলছে। এই কাজ চলতি বছরের জুলাই মাসে শেষ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সফল হলে পড়ে থাকা অন্য ডেমু ট্রেন চলাচলের উপযোগী করা যাবে। তাই এসব যন্ত্রপাতির অভাবে মেরামত করতে না পারায় ডেমু ট্রেন লোকোশেডে পড়ে আছে।

রেলওয়ের পার্বতীপুর স্টেশন মাস্টার শওকত আলী জানান, যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে ডেমু ট্রেনটি বন্ধ আছে। রেলওয়ের ওয়ার্কশপে ট্রেনটি মেরামতের জন্য আছে বলে তিনি জানতে পেরেছেন। তবে, কবেনাগাদ এ রুটে ডেমু ট্রেন আবার চালু হবে তা নির্দিষ্ট করে বলতে পারেননি রেলের এ কর্মকর্তা।

লালমনিরহাট ডিভিশনাল ট্রাফিক সুপারিনটেনডেন্ট (ডিটিএস) খালিদুন নেছার সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে এ বিষয়ে তিনি ডিআরএমের সঙ্গে কথা বলতে বলেন।

কবেনাগাদ ডেমু ট্রেন দুটি চালু হবে এ বিষয়ে কিছু বলতে পারেননি রেলওয়ের লালমনিরহাট বিভাগীয় ব্যবস্থাপক (ডিআরএম) শাহ সুফি নূর মোহাম্মদ। তিনি বলেন, ডেমু ট্রেন মেরামতের কাজ চলছে।

মন্তব্য করুন


Link copied