আর্কাইভ  রবিবার ● ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ ● ১০ আশ্বিন ১৪২৯
আর্কাইভ   রবিবার ● ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২
 
 
শিরোনাম: উত্তরবঙ্গে তাপমাত্রা কমার আভাস       অস্কারে যাচ্ছে ‘হাওয়া’       রংপুরে জাপানি নাগরিক হত্যায় ইছাহাকের খালাসের আদেশ স্থগিত       রংপুরে ভুয়া চাকুরীদাতা প্রতারক চক্রের ২ সদস্য গ্রেফতার       মরিয়ম মান্নানের মা জীবিত উদ্ধার; ছিলেন স্বেচ্ছায় আত্মগোপনে      

প্রেমিকের বিয়ের খবরে আত্মহত্যা করে রোকেয়া  বিশ্ববিদ্যালয়  শিক্ষার্থীর

রবিবার, ৪ সেপ্টেম্বর ২০২২, বিকাল ০৭:১৭

মমিনুল ইসলাম রিপন: রংপুর মহানগরীর আশরতপুর কামারের মোড় এলাকার একটি ছাত্রী নিবাস থেকে রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের একাউন্টিং এ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের শাহনাজ আক্তার মুন্নি নামের এক ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। প্রাথমিক তদন্তের উদ্ধৃতি দিয়ে পুলিশ জানিয়েছে, প্রেমিকের অন্যত্র বিয়ের খবরে   আত্মহত্যা করেছেন ওই শিক্ষার্থী।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের পুলিশ ফাঁড়ির  ইনচার্জ এসআই ইজার আলী। তিনি জানান, শনিবার রাত ১১টার দিকে খবর পেয়ে আশরতপুর কামারের মোড় এলাকার আজিজুল হক ছাত্রী নিবাসের একটি কক্ষে ফ্যানের সাথে ওড়না দিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় ওই ছাত্রীকে দেখতে পাই। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরিয়াল বডি, মেস মালিক সমিতির সভাপতি ও স্থানীয়দের উপস্থিতিতে দরজা ভেঙে শাহনাজের লাশ নামানো হয়। ওই শিক্ষার্থীর মা-বাবাকে খবর দেয়া হয়েছে। তারা এলে বাকি আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করা হবে। তার বাড়ি গাইবান্ধা সদর উপজেলার দক্ষিণ ঘাগোয়া গ্রামে। সে বিশ্ববিদ্যালয়ের একাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সাইন্স বিভাগের ১০ম ব্যাচের শিক্ষার্থী।

তিনি আরও জানান, আলামত হিসেবে এখন পর্যন্ত কোনো সুইসাইডার নোট তারা ওই ঘরে পাননি। তবে বান্ধবী পরিবার এবং মেসের অন্য শিক্ষার্থীদের সাথে কথা বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে, শাহনাজ আক্তার মুন্নির গ্রামের বাড়ির দিকে একজনের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। প্রেমিকের বিয়ে করার খবর পেয়ে শকড় হয়ে সে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়। এ ঘটনায় আরো তদন্ত করা হচ্ছে পুরো বিষয়টি তখন জানা যাবে।

ছাত্রী নিবাসটির অবস্থানরত শিক্ষার্থীরা জানান, শনিবার বেলা ৩টা থেকে শাহনাজের রুমের দরজা বন্ধ ছিল। বিকেল পেরিয়ে রাত হলেও শাহনাজ দরজা না খোলায় রাত সাড়ে ৮টায় থেকে বান্ধবীরা দরজা নক করেন। কিন্তু সাড়া না পেয়ে জানালা দিয়ে দেখতে পান শাহনাজ অরুনা পেঁচিয়ে ফ্যানের সাথে ঝুলছে। এসময় সহপাঠীকে এভাবে ঝুলতে দেখে সাথে সাথেই দুই শিক্ষার্থী জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন।

মন্তব্য করুন


Link copied