আর্কাইভ  সোমবার ● ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ● ২৪ মাঘ ১৪২৯
আর্কাইভ   সোমবার ● ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

শিরোনাম: রংপুরে শিবিরের ৬ নেতা কর্মী গ্রেফতার       রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দুদকের অভিযান       তুরস্ক ও সিরিয়ায় ভূমিকম্পে নিহত ১২০০ ছাড়াল       ভূমিকম্পে নিহত বেড়ে ৫৬০, তুরস্কে জরুরি অবস্থা ঘোষণা       ভূমিকম্পে তুরস্ক-সিরিয়ায় ৩১৩ জনের মৃত্যু      

রংপুরে প্রেমিকার বাবাকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

বুধবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২৩, রাত ০৮:৫১

ডেস্ক: রংপুরে মেয়ের প্রেমের বলি হলেন বাবা নওশাদ আলী (৫৫)। প্রেম মেনে না নেওয়ায় তাকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। নিহত নওশাদ আলী রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের কাচারিবাজার এলাকার আবুল কাশেমের ছেলে।

বুধবার (২৫ জানুয়ারি) সকাল ৯টার দিকে রংপুর-সুন্দরগঞ্জ আঞ্চলিক মহাসড়কে পীরগাছা উপজেলার কৈকুড়ি ইউনিয়নের ইছলারহাটের চেংটুর ব্রিজ সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নওশাদ আলীর মেয়ের সঙ্গে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার রামধন এলাকার ওসমান গণির ছেলে আব্দুল করিমের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। একপর্যায়ে মেয়েকে নিয়ে পালিয়ে যায় আব্দুল করিম। এ ঘটনায় করিমকে আসামি করে মিঠাপুকুর থানায় মামলা করেন নওশাদ আলী। মামলা দায়েরর পরে পুলিশ মেয়েকে উদ্ধার করে বাবার জিম্মায় দেয়। আব্দুল করিমকে গ্রেপ্তার করে জেল হাজতে পাঠায়। ওই মামলায় প্রায় তিন মাস হাজতবাসের পর সম্প্রতি জামিনে বের হন আব্দুল করিম।

খবর পেয়ে আবারও তার বাড়িতে গিয়ে অবস্থান নেন নওশাদ আলীর মেয়ে। বুধবার সকালে আব্দুল করিমের বাড়িতে গিয়ে মেয়েকে জোর করে সঙ্গে নিয়ে মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফিরছিলেন নওশাদ আলী। পথিমধ্যে ইছলারহাটের চেংটুর ব্রিজে পৌঁছালে তার পথ রোধ করে বেধড়ক মারধর করে আব্দুল করিম। সেখানে নওশাদ আলী গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে স্থানীয় ইছলার হাটে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। এ সময় তার অবস্থার অবনিত হওয়ায় রমেক হাসপাতালে পাঠানো হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

পীরগাছা থানার এসআই আব্দুল মালেক বলেন, প্রেমঘটিত কারণে এমন ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গেছে। নওশাদ আলীর লাশ ময়নাতদন্তের জন্য বর্তমানে রমেক হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। 

মন্তব্য করুন


Link copied