আর্কাইভ  রবিবার ● ৪ ডিসেম্বর ২০২২ ● ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
আর্কাইভ   রবিবার ● ৪ ডিসেম্বর ২০২২
 width=

 

রংপুর সিটিতে ইভিএম সম্পর্কে জানেন না ৯০ শতাংশ ভোটার

রংপুর সিটিতে ইভিএম সম্পর্কে জানেন না ৯০ শতাংশ ভোটার

রংপুর সিটি নির্বাচনে ৩৬ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল

রংপুর সিটি নির্বাচনে ৩৬ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল

রংপুর সিটি নির্বাচনে নৌকার প্রার্থীর সঙ্গে জেলা আ'লীগের মতবিনিময়

রংপুর সিটি নির্বাচনে নৌকার প্রার্থীর সঙ্গে জেলা আ'লীগের মতবিনিময়

রংপুর সিটি নির্বাচন ; ২৮ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থী নেছার আহমেদ এর ইশতেহার ঘোষণা

রংপুর সিটি নির্বাচন ; ২৮ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থী নেছার আহমেদ এর ইশতেহার ঘোষণা

 width=
শিরোনাম: স্বর্ণের দামে রেকর্ড       রংপুর সিটিতে ইভিএম সম্পর্কে জানেন না ৯০ শতাংশ ভোটার       পঞ্চগড়ে মাটিবাহী ট্রাক্টর চাপায় শিশুর মৃত্যু       কোতয়ালী থানার এসআই হাবীবের অনন্য স্বীকৃতি অর্জন       নির্বাচন কমিশন যেন একটি সুষ্ঠু নির্বাচনের ব্যবস্থা করে- বদিউল আলম মজুমদার      
 width=

বগুড়ায় প্রধানমন্ত্রীকে ‘কটূক্তি’: বিএনপি নেত্রী কারাগারে

সোমবার, ১৮ জুলাই ২০২২, সকাল ০৮:৩৩

ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে ‘আপত্তিকর' বক্তব্য দেওয়ার মামলায় বগুড়ায় এক বিএনপি নেত্রীকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। বগুড়া জেলা ও দায়রা জজ নরেশ চন্দ্র সরকার রোববার এ আদেশ দেন বলে জানান আদালত পুলিশের পরিদর্শক সুব্রত ব্যানার্জি।

সূত্র জানায়, মামলায় জামিন নিতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন বিএনপি নেত্রী সুরাইয়া জেরিন রনি। বগুড়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আজ রোববার হাজির হয়ে জামিন আবেদন করেন তিনি। শুনানি শেষে আদালত তার জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

সুরাইয়া জেরিন রনি বগুড়া জেলা জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও গাবতলী উপজেলা পরিষদের সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান।

আদালত সূত্র জানায়, গত ২৭ মে গাবতলী উপজেলায় বিএনপির সম্মেলনে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে বিএনপি নেত্রী সুরাইয়া জেরিন রনি আপত্তিকর বক্তব্য দেন। রনির ওই বক্তব্যের প্রতিবাদে ২৯ মে বিক্ষোভ মিছিলের ডাক দেয় গাবতলী উপজেলা আওয়ামী লীগ।

ওই কর্মসূচি পালন করতে গেলে আওয়ামী লীগে ও বিএনপি নেতাকর্মীর মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। ওই ঘটনায় গাবতলী পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আজিজার পাইকার বাদি হয়ে একটি মামলা দায়ের করেন। গত ৩১ মে দায়েরকৃত ওই মামলায় উপজেলা বিএনপির সভাপতি মোরশেদ মিল্টন, বিএনপি নেত্রী সুরাইয়া জেরিন রনিসহ ১৩৩ জনকে আসামী করা হয়। সেই মামলাতেই আদালতে হাজির হয়ে জামিন নিতে যান রনি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বেলা ১২টার দিকে যখন তিনি আদালতে হাজির হতে যান, সে সময় মহিলা আওয়ামী লীগের এক নেত্রী পুলিশ বেষ্টনির মধ্যেই রনিকে চড়-থাপ্পড় দেন। এরপর জামিন নামঞ্জুরের পর আদালত থেকে তাকে প্রিজন ভ্যানে তোলার সময় যুবলীগ নেতাকর্মী দলীয় স্লোগান দিয়ে রনিকে লক্ষ্য করে ডিম নিক্ষেপ করতে থাকেন।

পুলিশের প্রিজন ভ্যান আদালত প্রাঙ্গণ ত্যাগ করলে যুবলীগ ও বিএনপি নেতাকর্মীরা মুখোমুখি অবস্থান নেয়। পরে পুলিশ উভয় পক্ষকে হটিয়ে দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয়।

আদালত পুলিশের পরিদর্শক সুব্রত ব্যানার্জী জানান, ওই সময় কিছুটা উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে সদর থানা ও সদর ফাঁড়ি পুলিশ পরিস্থিতি সামাল দেয়।

মন্তব্য করুন


Link copied