আর্কাইভ  সোমবার ● ২৯ নভেম্বর ২০২১ ● ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
আর্কাইভ   সোমবার ● ২৯ নভেম্বর ২০২১

সৈয়দপুরে ধর্ষণের অভিযোগে পল্লী চিকিৎসক গ্রেফতার

সোমবার, ১ নভেম্বর ২০২১, রাত ১০:৪৫

স্টাফ রিপোর্টার,নীলফামারী॥ বিয়ের চারদিনের মাথায় প্রেমিকার দায়ের করা ধর্ষন মামলায় গ্রেফতার হয়েছে এক পল্লী চিকিৎসক। সোমবার দুপুরে নীলফামারীর সৈয়দপুর শহরের ঘোড়াঘাট (গোলাহাট) রেলওয়ে কলোনী এলাকায়। গ্রেফতারকৃত পল্লী চিকিৎসক শাহিন আলী বাবু (৪০) উক্ত এলাকার মৃৃত আজগার আলীর ছেলে। প্রেমিকা  হলো দিনাজপুরের  খানসামা উপজেলার থানাপাড়া কাশেম আলীর মেয়ে মিনু (৩৫)।
মামলার অভিযোগ মতে প্রেমিকা মেয়েটির স্বামী ছিল।  চিকিৎসা করার সুবাধে পরিচয় হয় বাবুর সথে। এরপর তারা প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। অবিবাহিত পল্লী চিকিৎসক মিনুকে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে দৈহিক সর্ম্পক গড়ে তোলে। এতে মেয়েটি তার স্বামীর সাথে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটনায়। এরপর বাবু প্রেমিকার ভরণ পোষণসহ সার্বিক ব্যয় নির্বাহ করে আসছিল। কিন্তু আজ কাল করে বিয়ে করছিলনা বাবু। এ অবস্থায় গত ২৮ অক্টোবর অন্য মেয়েকে বিয়ে করে পল্লী চিকিৎসক  বাবু। এই খবর পেয়ে ৩০ অক্টোবর প্রেমিকা মিনু সৈয়দপুরে এসে দেখে শহরের আধুনিক একটি কমিউনিটি সেন্টারে চলছে প্রেমিক বাবুর বউভাত। এ ঘটনায় মিনু সৈয়দপুর থানায় গিয়ে প্রতারণা ও বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের মামলা দায়ের করে( মামলা নম্বর ২৮, তারিখ ৩০/১০/২০২১ ইং)। এই মামলার প্রেক্ষিতে সোমবার দুপুরে এস আই তারেক মাহমুদ আসামীকে তার চেম্বার থেকে গ্রেফতার করে।
সৈয়দপুর থানার ওসি মোঃ আবুল হাসনাত ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, বিকালে আসামীকে আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন


Link copied