আর্কাইভ  শুক্রবার ● ২৪ মে ২০২৪ ● ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
আর্কাইভ   শুক্রবার ● ২৪ মে ২০২৪
 width=
 
 width=
 
শিরোনাম: ফেব্রুয়ারির পরিবর্তে ডিসেম্বরে এসএসসি পরীক্ষা, সময় ৫ ঘণ্টা       লালমনিরহাটে লাশ উদ্ধারের ৬ মাস পর হত্যা মামলা, স্ত্রী-কন্যা গ্রেফতার       বিএনপির বলার ভাণ্ডার শুন্য হয়ে গেছে- রংপুরে নানক       এমপি আনার খুনে ‘হানিট্র্যাপ’, কে এই সিলিস্তি রহমান?       ন্যায়বিচার মানুষের মৌলিক অধিকার- রংপুরে প্রধান বিচারপতি       

 width=
 

কিশোরীগঞ্জে পাঁচতলা ভবন থেকে পড়ে এক ব্যাক্তির রহস্যজনক মৃত্যু

বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, বিকাল ০৭:১২

স্টাফরিপোর্টার,নীলফামারী॥ পাঁচতলা ভবনের ছাদ থেকে পড়ে আবু সাঈদ (৪৫) নামে এক ব্যাক্তির রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার(১৬ এপ্রিল) সন্ধ্যার পর নীলফামারীর কিশোরীগঞ্জ উপজেলা শহরের প্রাণী সম্পদ অফিস মোড়ে অবস্থিত দাদন ব্যবসায়ী শরিফুল ইসলামের পাঁচতলা বাসার ছাদ থেকে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আবু সাঈদ উপজেলা সদরের গদা এলাকার মৃত জোবান উদ্দিনের ছেলে। ঘটনার পর থেকে উক্ত পাঁচতলা ভবন মালিক দাদন ব্যবসায়ী শরিফুল ইসলাম গাঁঢাকা দেয় ও তার মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়। 
পুলিশ ওই ভবনের সিসি ক্যামেরার ভিডিও সংগ্রহ করেছেন। এতে দেখা যায় পাঁচতলা বাসার ছাদে উঠে পড়েন আবু সাঈদ। এরপর ওই বাড়ির ছাদে সিসি ক্যামেরা না থাকায় তা রহস্য দেখা দিলেও তিনি যখন ছাদ থেকে মাটির নিচে পড়ে যাচ্ছিলেন তখনকার দৃশ্য সিসি ক্যামেরায় ধরা পড়ে। তবে ছাদে দ্বিতীয় কোন ব্যাক্তি ছিলেন কিনা তা কেউ নিশ্চিত হতে পারেননি। পরে স্থানীয়রা তাকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।
পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, প্রায় ৫ বছর আগে সাঈদের সঙ্গে স্ত্রীর  বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটলে একমাত্র পুত্র সন্তান সহ স্ত্রী বাবার বাড়ি চলে যায়। সেই সময় নিজের ঘরবাড়ি ছেড়ে তিনি কিশোরীগঞ্জ বৃদ্ধাশ্রমে বসবাস করতেন। পরে পুনরায় নিজবাড়িতে ফিরে যান এবং স্বাভাবিকভাবে হালকৃষি ও হাটবাজার করতেন। 
এ ঘটনায় বুধবার সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(সৈয়দপুর সার্কেল) কল্লোল কুমার দত্ত। কিশোরীগঞ্জ থানার ওসি পলাশ চন্দ্র মন্ডল বলেন আমরা হাসপাতাল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে বুধবার দুপুরে  জেলার মর্গে ময়না তদন্ত করা হয়। এ ঘটনায় প্রাথমিকভাবে একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করা হয়েছে। ময়না তদন্তের রির্পোট পাওয়ার পর আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। 

মন্তব্য করুন


 

Link copied