আর্কাইভ  বৃহস্পতিবার ● ৬ অক্টোবর ২০২২ ● ২১ আশ্বিন ১৪২৯
আর্কাইভ   বৃহস্পতিবার ● ৬ অক্টোবর ২০২২
 
 
শিরোনাম: দেশের মানুষ আজ নরকে বাস করছে-জিএম কাদের       গাইবান্ধায় লোকালয়ে হনুমান, উৎসুক জনতার ভিড়       নভেম্বরে বন্ধ হবে ৩০ লাখ মোবাইল সিম       কাঁটাতারের বেড়া ভালোবাসা ভাগ করতে পারেনি       করোনায় ২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৫৪৯      

পঞ্চগড়ে স্বর্ণ সাদৃশ্য স্বরসতি মুর্তিসহ ১০জন আটক

মঙ্গলবার, ৮ ফেব্রুয়ারি ২০২২, রাত ০৮:২৯

ডিজার হোসেন বাদশা, পঞ্চগড় প্রতিনিধি: পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলায় স্বর্ণ সাদৃশ্য স্বরসতি মুর্তিসহ ১০জনকে আটক করেছে পুলিশ।

আটকের পর মঙ্গলবার (৮ ফেব্রুয়ারি) বিকেল সাড়ে ৫টার সময় তাদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এর আগে গত সোমবার (৭ ফেব্রুয়ারি) দিনগত গভির রাতে বোদা উপজেলার মাড়েয়া ইউনিয়নের মাড়েয়া বাজার থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃত চোরাকারবারীরা হলেন, নীলফামারীর ডোমার উপজেলার খামার বামুনিয়া ডেপিরপাড় এলাকার শ্রী মধুরাম রায়ের ছেলে জীবন চন্দ্র রায় (৩০), একই উপজেলার পশ্চিম বড়বাউতা এলাকার আ: সালামের ছেলে আবু হানিফ (৪০), একই এলাকার সুফিয়ার রহমানের ছেলে জিয়ারুল ইসলাম (২৮), আজিবার রহমানের ছেলে ফারুক ইসলাম (৩৪), আব্দুল লতিফের ছেলে রেজাউল ইসলাম (৩০), চিকনমাটি বসতপাড়া এলাকার মৃত দারাজ মিয়ার ছেলে আবু তালেব (৪৮), মাহিগঞ্জ বাগডোকরা এলাকার শ্রী হরিস চন্দ্র রায়ের ছেলে শরৎ চন্দ্র রায় (২০), চিলাই এলাকার আনছারুল হকের ছেলে ফরহাদ হোসেন (৩৪),  বড় রাউতা এলাকার মৃত আ: রহমানের ছেলে আব্দুল গফুর (৪৫), পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জ উপজেলার খুটামারা সরকারপাড়া এলাকার শ্রী নবদ্বিপ চন্দ্র রায়ের ছেলে বিরেশ চন্দ্র রায় (২১)।

পুলিশের দায়ের করা এজাহার সূত্রে জানা যায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গত সোমবার (৭ ফেব্রুয়ারি) দিনগত গভির রাতে পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলার ৬নং মাড়েয়া ইউনিয়নের মাড়েয়া বাজারের কবির মার্কেটের সামনে অভিযান পরিচালনা করে তাদের দশজনকে আটক করা হয়। এসময় তাদের তলাশ্লি করে তাদের কাছ থেকে একটি স্বর্ণ সাদৃশ্য মুর্তি জব্দ করা হয়। পরে তাদের থানায় নেয়া হয়। এদিকে অভিযানের সময় মুর্তির পাশাপাশি তাদের কাছ থেকে তিনটি মোটরসাইকেল, দশটি মোবাইল জব্দ করা হয়।

মঙ্গলবার সন্ধায় বোদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু সাঈদ চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করেন বলেন, জব্দ করা স্বর্ণ সাদৃশ্য স্বরসতি মুর্তির বাজার মূল্য ধরা হয়েছে ৫১ লক্ষ ৪৭ হাজার ৮৮৭ টাকা। অভিযানের সময় দশজনকে আটক করা হলেও তাদের অপর তিনজন আসামী পালিয়ে যায়। তাদেরও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এদিকে তিনটি আলাদা ধারায় আসামীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে তাদের জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন


Link copied