আর্কাইভ  শুক্রবার ● ২১ জুন ২০২৪ ● ৭ আষাঢ় ১৪৩১
আর্কাইভ   শুক্রবার ● ২১ জুন ২০২৪
 width=
 
 width=
 
শিরোনাম: লালমনিরহাটে ৫ হাজার পরিবার পানিবন্দি       পঞ্চগড়ে নদী থেকে হাত-পা বাঁধা নারীর মরদেহ উদ্ধার       ডিমলায় বুড়ি তিস্তার বাঁধ ভেঙ্গে শতাধিক পরিবার পানিবন্দী ॥  তলিয়ে গেছে আবাদী জমি       কিশোরীগঞ্জে পুকুরের পানিতে ডুবে স্কুল ছাত্রের মৃত্যু       নীলফামারীতে দীর্ঘ ছয় বছর আত্মগোপনে থাকার পর ধর্ষণ মামলার পলাতক আসামি গ্রেপ্তার      

 width=
 

রংপুর বিভাগের তিন জেলা থেকে ১১ চাঁদাবাজ গ্রেফতার

রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, দুপুর ০৩:২১

মমিনুল ইসলাম রিপন: পণ্যবাহী যানবাহন থেকে চাঁদাবাজির সময় র‌্যাব-১৩ রংপুর সদর দপ্তরের সদস্যরা শনিবার রাতে রংপুর বিভাগের রংপুর, কুড়িগ্রাম ও নীলফামারী জেলায় অভিযান চালিয়ে ১১ চাঁদাবাজকে গ্রেফতার করে। রোববার (১৯ মে ) দুপুরে র‌্যাব-১৩ উপ-পরিচালক (মিডিয়া) স্কোয়াড্রন লীডার মাহমুদ বশির আহমেদ স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানা গেছে।
 
সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে রংপুর বিভাগের বিভিন্ন সড়কে পণ্যবাহী যানবাহন থেকে অবৈধভাবে বিভিন্ন সংগঠনের নামে চাঁদা উত্তোলন করে আসছিল একদল চাঁদাবাজ। তারা লাঠিসোটা দেখিয়ে জাতীয় ও আঞ্চলিক মহাসড়কে পণ্যবাহী যানবাহন থামিয়ে ভয়-ভীতি দেখিয়ে চালকদের কাজ থেকে চাঁদা আদায় করতো। এসব সড়ক-মহাসড়কে চাঁদাবাজদের দৌরাত্ম দিন দিন বেড়ে যাওয়ায় অভিযানে নামে র‌্যাব-১৩।

এরই ধারাবাহিকতায় রংপুর বিভাগের রংপুর,কুড়িগ্রাম ও নীলফামারী জেলায় অভিযান চালিয়ে ১১ জন চাঁদাবাজকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, রংপুরের হারাগাছ এলাকার মাসুদ আহমেদ,  রংপুর নগরীর বৈরাগী পাড়ার দিপক সরকার পার্বতীপুর এলাকার জালাল মিয়া, আশরতপুর মাছুয়া পাড়া এলাকার পলাশ চন্দ্র রায়, মিঠাপুকুর উপজেলার চুহুড়  এলাকার মিলন মিয়া,কুড়িগ্রাম জেলা শহরের চৌধুরীপাড়া এলাকার জাবেদ, শাহাবুল ইসলাম, বেলাল হোসেন, ইব্রাহিম আলী, নীলফামারী জেলার জলঢাকা উপজেলা থেকে শাহআলম ও গোলাম মোস্তফাকে গ্রেফতার করা হয়।  

র‌্যাব জানায়, সড়ক ও মহাসড়কে চাঁদাবাজদের বিরুদ্ধে তাদের এই অভিযান অব্যাহত থাকবে। 

মন্তব্য করুন


 

Link copied