আর্কাইভ  শুক্রবার ● ২৪ মে ২০২৪ ● ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
আর্কাইভ   শুক্রবার ● ২৪ মে ২০২৪
 width=
 
 width=
 
শিরোনাম: ফেব্রুয়ারির পরিবর্তে ডিসেম্বরে এসএসসি পরীক্ষা, সময় ৫ ঘণ্টা       লালমনিরহাটে লাশ উদ্ধারের ৬ মাস পর হত্যা মামলা, স্ত্রী-কন্যা গ্রেফতার       বিএনপির বলার ভাণ্ডার শুন্য হয়ে গেছে- রংপুরে নানক       এমপি আনার খুনে ‘হানিট্র্যাপ’, কে এই সিলিস্তি রহমান?       ন্যায়বিচার মানুষের মৌলিক অধিকার- রংপুরে প্রধান বিচারপতি       

 width=
 

ডোমার-ডিমলা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভোটারদের উপস্থিতি কম॥ঘুমাচ্ছে প্রার্থীর এজেন্ট

বুধবার, ৮ মে ২০২৪, বিকাল ০৭:১৭

স্টাফ রিপোর্টার,নীলফামারী॥ নীলফামারীর দুই উপজেলা ডোমার ও ডিমলায় গতকাল বুধবার ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদের প্রথম ধাপের নির্বাচনের ভোটগ্রহন কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই শান্তিপূর্ণভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। উত্তুরি বাতাস ও সকাল থেকেই আকাশ মেঘলা থাকলেও বৃস্টির দেখা মেলেনি। ভোট কেন্দ্র গুলোতে ভোটার উপস্থিতি ছিল একদমই কম। চলতি রবি মৌসুম ফসল ঘরে তোলার জন্য কৃষক ও কামলারা মহা ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন। কৃষক বধুরাও যেন দম ফেলার সুযোগ পাচ্ছেন না। এতে উপজেলা নির্বাচন ভোটার সংখ্যা কম পরিলক্ষিত হয় বলে অনেকে মন্তব্য করেছেন। তবে নতুন প্রজন্মের বেশ কিছু ভোটারদের জীবনে প্রথম ভোট প্রদান করত দেখা যায়। সকাল ৮টা থেকে টানা বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোট গ্রহন চলে। 
বিভিন্ন সুত্র জানায়, ডিমলায় ২৮ ভাগ ও ডোমারে ৩৫ ভাগ ভোট কাষ্ট হতে পারে।
এদিকে ভোটের দিন দুপুর ২টার দিকে ডিমলা উপজেলার নিজপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় পুরুষ ভোট কেন্দ্রে দেখা যায় এক চেয়ারম্যান প্রার্থীর পোলিং এজেন্ট ঘুমিয়ে পড়েছে। অন্যান্য এজেন্টরা বলছেন না ঘুমায় উপায় আছে। ভোটার তো ভোট দিতে আসে না। কেন্দ্রের কক্ষে ঘুমিয়ে পড়া ওই ব্যক্তির আলাকুল ইসলাম (৫৫)। তাকে ডেকে তুলে সাংবাদিকরা কথা বলে জানতে পারে তিনি ঘোড়া প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থীর পোলিং এজেন্ট। তিনি জানান, সকাল সাড়ে ৭টায় ভোট কেন্দ্রে আসছি। সকাল ৮টায় ভোট শুরু হয়। কখনো কখনো দুই তিনজন আবার কখনো কখনো ২০ মিনিট পর একজন ভোটার আসছে। ভোটার উপস্থিতি কম হওয়ায় কখন যে ঘুমিয়ে পড়েছি বলতে পারছি না। ওই কেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রিজাইডিং অফিসার মো. আপেল ইসলাম  জানান, এই ভোট কেন্দ্রে  ২হাজার ৩৫৪ জন পুরুষ ভোটারের মধ্যে দুপুর সোয়া দুইটা পর্যন্ত ভোট প্রদান করেছেন ৫২০ জন। 
ওই দুই উপজেলার মধ্যে ডোমারে ৭৫টি ও ডিমলায় ৯৩টি সহ মোট ১৬৮টি ভোট কেন্দ্র। ভোট কেন্দ্রগুলোতে ভোটার উপস্থিত কম হলেও প্রার্থীদের সমর্থকদের উপচে পড়া ভিড় দেখা গেছে কেন্দ্রের বাহিরে। ডোমার উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় ভোটার সংখ্যা ২ লাখ ৭ হাজার ৫৭১ জন। ডিমলা উপজেলার ১০টি ইউনিয়নে ভোটার সংখ্যা ২ লাখ ২৭ হাজার ৯৯৩ জন।  
বিভিন্নজনের সাথে কথা বলে জানা যায়, চলতি রবি মৌসুমে গ্রামে গ্রামে চলছে ভুট্টা কাটাই মাড়াইয়ের কাজ। কৃষক কামলারা মহা ব্যস্ত। কৃষক বধুরা ব্যস্ত। এ ছাড়া বোরা ধান ক্ষেত পরিচর্যাও করছে অনেকে। দুই এলাকার বৃহৎ অংশ কামলা বোরো ধান কাটাই মাড়াইয়ের জন্য দেশের বিভিন্ন প্রান্ত চলে গেছে। ফলে ভোটার সংখ্যা কম দেখা যাচ্ছে। কৃষক রমজান আলী,বশির উদ্দিন, আইনুদ্দিন জানান, আকাশ খারাপ। মেঘ বাতাস । তাই ভুট্টার কাটাই মাড়াই নিয়ে ব্যস্ত সময় চলছে। ভোট কেন্দ্রে যাবার সময় নাই।
সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত  বিভিন্ন ভোট কেন্দ্র পরিদর্শণ করেন জেলা প্রশাসক পঙ্কজ ঘোষ ও পুলিশ সুপার গোলাম সবুর। তারা জানান, শান্তিপূর্ণ ভোটগ্রহন অনুষ্ঠি হয়েছে। তবে কেন্দ্র গুলোতে ভোটার উপস্থিত কম দেখা গেছে।  
ওই দুই উপজেলার মধ্যে ডোমার উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে ৮জন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রয়েছেন। তারা হলেন, সরকার  ফারহানা আক্তার সুমি (টেলিফোন), মনোয়ার হোসেন (হেলিকপ্টার) মঞ্জুরুল হক চৌধুরী (কাপ-পিরিচ), আব্দুল মালেক সরকার (ঘোড়া), মো. তোফায়েল আহমেদ (আনারস), রাকিবুল হাসান প্রধান (কই মাছ) এহসানুল হক (দোয়াত কলম) এবং মদন মোহন সিংহ (মোটরসাইকেল)। এছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৮জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫জন প্রার্থী রয়েছেন।
অপরদিকে ডিমলা উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে রয়েছেন ৪ জন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী। তারা হলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. তবিবুল ইসলাম (কাপ-পিরিচ), আনোয়ারুল হক সরকার (ঘোড়া), মো. ফেরদৌস পারভেজ (আনারস), আব্দুর রহমান (মোটরসাইকেল)। সেখানে ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৭জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩জন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রয়েছেন। 

মন্তব্য করুন


 

Link copied