আর্কাইভ  সোমবার ● ২৯ নভেম্বর ২০২১ ● ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
আর্কাইভ   সোমবার ● ২৯ নভেম্বর ২০২১

তেঁতুলিয়ায় নৌকার নির্বাচনী পথসভায় হামলা ও মোটরসাইকেলে অগ্নিসংযোগ

সোমবার, ১ নভেম্বর ২০২১, রাত ১২:২৭

ডিজার হোসেন বাদশা, পঞ্চগড় প্রতিনিধি: পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকার পথসভায় হামলার অভিযোগ ও মোটরসাইকেলে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটেছে। উপজেলার ভজনপুর ইউনিয়নে এ ঘটনায় আহত হয়েছে আওয়ামীলীগের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী। সহিংসতার এই ঘটনায় প্রায় ২ ঘন্টা ধরে মহাসড়কের দুইধারে শতাধিক যানবাহন আটকা পরে। এদিকে খবর পেয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

রোববার (৩১ অক্টোবর) রাত ৮টার দিকে জেলার তেঁতুলিয়া উপজেলার ভজনপুর বাজারে তেঁতুলিয়া-পঞ্চগড় মহাসড়কে এই ঘটনাটি ঘটে। খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন তেঁতুলিয়া ফায়ার সার্ভিস, তেঁতুলিয়া হাইওয়ে পুলিশ, তেঁতুলিয়া মডেল থানা পুলিশ, জেলা গোয়েন্দা শাখার কর্মী (ডিবি), তেঁতুলিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউএনও, তেঁতুলিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান। ঘটনার পর থেকে পুরো ভজনপুর ইউনিয়নে থমথমে পরিবেশ বিরাজ করছে। তবে এ ঘটনায় আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে প্ররণ করা হয়েছে।

নেতা কর্মীরা অভিযোগ করে বলেন, বিএনপি জামায়াতের নেতাকর্মীরা সরাসরি নির্বাচনে অংশ না নিলেও তাদের অনুসারী স্বতন্ত্র্য প্রার্থী ও সমর্থকরা এই ঘটনাটি ঘটিয়েছেন। তবে সতন্ত্রর প্রার্থীর কোন দলের কর্মীরা এমন ঘটনা ঘটিয়েছে তা এখন পর্যন্ত সঠিক ভাবে জানা যায়নি। পুরে যাওয়া মোটরসাইকেলটির মালিক আশরাফুল ইসলাম জানান, ঘটনার সময় আমাদের সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থীর বক্তব্য শুনতে গেলে দুর্বিত্তরা আমার মোটরসাইকেলটি জ্বালিয়ে দেয়।

ভজনপুর ইউনয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনিত নৌকা প্রাথী হারুন অর রশিদ লিটন বলেন, আমরা শান্তিপূর্ণ ভাবে আমাদের পথসভা করছিলাম। ভজনপুর বাজারে মহাসড়কে রাত ৮টার সময় ইউনিয়নবাসীর উদ্দেশ্যে নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণার করতে গেলে এসময় পথসভার পেছন থেকে বিএনপি জামায়াতের নেতাকর্মী ও সমর্থকেরা এই ঘটনাটি ঘটিয়ে পালিয়ে যায়। পরে নেতাকর্মীরা আমাকে ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি মজিবর রহমান মাস্টারকে দ্রুত নিরাপদ স্থানে নিয়ে যায়। এখন হামলাকারীদের বিরুদ্ধে তেঁতুলিয়া থানায় মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছি। আমরা এর সুষ্ঠু তদন্তে চেয়ে জড়িতদের বিচার দাবী করছি।

তেঁতুলিয়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু সায়েক মিয়া বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে। এ ঘটনায় অভিযোগ পেলে আইনি ব্যাবস্থা গ্রহণ করা হবে।

তেঁতুলিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সোহাগ চন্দ্র সাহা বলেন, সুষ্ঠু ভাবে নির্বাচন পালনে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষ থেকে আমরা বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছি। পথসভায় যে ঘটনাটি ঘটেছে এটি অনাকাঙ্খিত ঘটনা। আমরা এর সুষ্ঠু তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

তেঁতুলিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক কাজী মাহমুদুর রহমান ডাবলু বলেন, ভজনপুরে যে ঘটনাটি ঘটেছে এটা আমরা কখনো আশা করিনি। যদিও ভজনপুর বিএনপির এলাকা আমরা চাই সবাই মিলে মিশে থাকতে। আর এ ঘটনায় আমাদের যে আহত কর্মী আছে তাদের আমরা দ্রুত উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠিয়েছি। শুধু এখানে না উপজেলা বেশ কিছু ইউনিয়নে আমাদের বিদ্রোহী প্রার্থীরাও এ রকম বিশৃঙ্খলা করতেছে। উপজেলা প্রশাসন এ বিষয়ে তৎপর, ভজনপুরে যারা এ ধরণের ঘটনা ঘটিয়েছে তারা যেন এ থেকে বিরত থাকে নাহলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

শেষ লেখা পর্যন্ত পুরো ইউনিয়নের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি তেঁতুলিয়া থানা পুলিশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

মন্তব্য করুন


Link copied