আর্কাইভ  বৃহস্পতিবার ● ৬ অক্টোবর ২০২২ ● ২১ আশ্বিন ১৪২৯
আর্কাইভ   বৃহস্পতিবার ● ৬ অক্টোবর ২০২২
 
 
শিরোনাম: দেশের মানুষ আজ নরকে বাস করছে-জিএম কাদের       গাইবান্ধায় লোকালয়ে হনুমান, উৎসুক জনতার ভিড়       নভেম্বরে বন্ধ হবে ৩০ লাখ মোবাইল সিম       কাঁটাতারের বেড়া ভালোবাসা ভাগ করতে পারেনি       করোনায় ২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৫৪৯      

নীলফামারীতে পৃথক ঘটনায় চার শিশু নিহত

বৃহস্পতিবার, ৫ মে ২০২২, রাত ০৯:০৭

স্টাফ রিপোর্টার,নীলফামারী॥ পৃথক ঘটনায় নীলফামারীর ডিমলা উপজেলায় পানিতে ডুবে দুই, ইজিবাইকের ধাক্কায় দুই সহ চার শিশু প্রাণ হারিয়েছে। এ ছাড়া কুকুরের হামলায় এক শিশু মারাত্বক আহত হয়েছে। ঈদের দিন ও পরের দিন বিকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত মর্মান্তিক এই ঘটনা গুলো ঘটে।
ঈদের দিন মঙ্গলবার (৩ মে) সন্ধ্যার দিকে ডোমার উপজেলার পাঙ্গামটকপুর এলাকার সোলেমান মিয়ার স্ত্রী ও ৪ বছরের মেয়ে সুমাইয়া সহ আত্বীয়র বাড়ি বেড়ানো শেষে নিজবাড়ি ফিরছিল। পথে ডিমলা উপজেলার রামডাঙ্গা নামক স্থানে রাস্তা পার হওয়ার সময় তাদের শিশু কন্যা সুমাইয়া ইজিবাইয়ের ধাক্কায় আহত হয়। তাকে ডোমার উপজেলার হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে রংপুর মেডিকেলে স্থানান্তর করার পথে মারা যায়।
অপরদিকে ঈদের পরদিন বুধবার(৪ মে) সন্ধ্যায় মায়ের সাথে নানা বাড়ী থেকে ফেরার পথে অটো থেকে পড়ে উপজেলার খালিশা চাপানি ইউনিয়নের তালতলা নামক স্থানে সিফাত আহম্মেদ (৬) মৃত্যু হয়। সে নাউতরা ইউনিয়নের নাউতরা ফুটব্রীজ গ্রামের আব্দুল মাতিনের ছেলে।
অন্যদিকে ঈদের দিন দুপুরে ডিমলা উপজেলার উত্তর তিতপাড়া গ্রামের ফজলুল ইসলামের দেড় বছরের ছেলে ফাহিম এবং পাথরকুড়া গ্রামের মিঠু ইসলামের তিন বছরের মেয়ে মাসুমা আকতার পানিতে ডুবে প্রাণ হারায়। উত্তর তিতপাড়া গ্রামে নিজ বাড়ির উঠানে খেলছিল ফাহিম। এক পর্যায়ে ফাহিম উঠানের পাশের খালের পানিতে ডুবে প্রাণ হারায়। অপরদিকে পাথরকুড়া গ্রামে বাড়ির পাশে খেলা করতে গিয়ে নিখোঁজ হয় মাসুমা। খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে পুকুরের পানি থেকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়।
এদিকে ঈদগায়ে ঈদের নামাজের সময় কুকুরের হামলায় মারাত্বভাবে আহত হয়েছে মোরছালিন নামের ৫ বছরের এক শিশু। শিশুটি ডোমার উপজেলার মৌজাপাঙ্গা গ্রামের জিয়ারুল ইসলামের ছেলে। শিশুটি তার বাবা সহ পাশ্ববর্তী ডিমলা উপজেলার মধ্যম সুন্দরখাতা ঈদগায়ে ঈদের নামাজ পড়তে এসেছিল। শিশুটি প্রথমে ডোমার হাসপাতালে ও পরে রংপুর মেডিকেলে স্থানান্তরিত করা হয়।
ডিমলা থানার ওসি লাইছুর রহমান ও ডোমার থানার ওসি সাইফুল ইসলাম পৃথক এই ঘটনাগুলোর সত্যতা নিশ্চিত করেন।

মন্তব্য করুন


Link copied