আর্কাইভ  শনিবার ● ৪ ডিসেম্বর ২০২১ ● ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৮
আর্কাইভ   শনিবার ● ৪ ডিসেম্বর ২০২১

নীলফামারীতে ৬ পুরুষ প্রার্থীর সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন এক নারী

বুধবার, ২৪ নভেম্বর ২০২১, সকাল ০৯:৪১

ডেস্ক: নীলফামারী পৌরসভা নির্বাচনে সাধারণ কাউন্সিলর পদে ছয় প্রতিদ্বন্দ্বীর সঙ্গে ভোট যুদ্ধে লড়ছেন এক নারী প্রার্থী। পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের ওই প্রার্থীর নাম পারভিন আক্তার বাসনা। ভোটারের দ্বারে দ্বারে গিয়ে গাজর প্রতীকে ভোট চাইছেন তিনি। বাসনাসহ সাত প্রার্থী ওই কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তারা সবাই ভোটের মাঠে রয়েছেন।

তারা হলেন- আবুল কাশেম (ডালিম), মশিউর রহমান বাটুল (বোতল), নিতিশ চন্দ্র পাল (পাঞ্জাবী), ইমদাদুল হক মনোয়ার (উটপাখি), ময়নুল ইসলাম (ব্ল্যাক বোর্ড) ও নুর ইসলাম জুয়ান (টেবিল ল্যাম্প)।

ওই ওয়ার্ডের মুরগীহাটি মহল্লার ভোটার সিরাজুল ইসলাম বলেন, ‘নীলফামারী পৌরসভার ৪৯ বছরের ইতিহাসে এবারই প্রথম এক নারী ৩নং ওয়ার্ডে সাধারণ কাউন্সিলর হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তার বিপক্ষে ছয় জন পুরুষ প্রার্থী ভোটের মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন। তিনি জয়ের বিষয়েও দৃঢ় আশাবাদী।’

পারভিন বলেন, ‘আমি এলাকাবাসীর ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি। বিশেষ করে নারী ভোটাররা উৎসাহ নিয়ে আমাকে কাছে টানছেন। ভোট দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন। শুধু পুরুষই নয়, নারীরাও সাধারণ ওয়ার্ডে নির্বাচন করতে পারে। আগামীতে অনেক নারী আমাকে দেখে উদ্বুদ্ধ হয়ে সাধারণ কাউন্সিলর পদে ভোট যুদ্ধে লড়বেন। এটাই আমার চাওয়া।’

তিনি বলেন, ‘আমার জানা মতে, এই পৌরসভায় কখনও কোনও নারী সাধারণ কাউন্সিলর পদে নির্বাচনে অংশ নেয়নি। শুধু সংরক্ষিত নারী আসনে নির্বাচন করেন। সংসার চালানোর পাশাপাশি জনগণকে সঙ্গে নিয়ে কাজও করতে চাই। আমার সাধারণ কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করার সামর্থ্য রয়েছে। এ কারণে দাঁড়িয়েছি। সমাজে অনেক কর্মকাণ্ডে আমার সম্পৃক্ততা আছে।’

তার স্বামী ইয়াসিন আহমেদ বলেন, ‘স্ত্রীর সঙ্গে পাড়া-মহল্লায় প্রচার প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছি। সাধারণ ওয়ার্ডে প্রথম নারী কাউন্সিলর প্রার্থী হওয়ায় ভোটাররা বেশ আগ্রহ প্রকাশ করছেন। এমনকি প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন।’

ভোটার রবিউল ইসলাম বলেন, ‘নির্বাচনে অংশ নিয়ে পারভিন অনেক সাহসিকতার পরিচয় দিয়েছেন। তিনি নির্বাচিত হলে পৌরসভার ৪৯ বছরের ইতিহাসের সাক্ষী হয়ে থাকবেন।’

নারীর অধিকার ও ক্ষমতায়ন নিয়ে কাজ করা ডেমোক্রেসি ওয়াচের কর্মসূচি সমন্বয়কারী কামাল হোসেন বলেন, ‘পারভিনের নির্বাচনে অংশগ্রহণ নারী নেতৃত্ব প্রতিষ্ঠার চেষ্টাকে আরও এগিয়ে নেবে।’

জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘নীলফামারী পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডে পারভিন আক্তার ছাড়া আরও ছয় পুরুষ প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এই পৌরসভায় এর আগে কখনও কোনও নারী সাধারণ ওয়ার্ডে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেনি। এবারই প্রথম পারভিন আক্তার বাসনা।’

মন্তব্য করুন


Link copied